Thursday, June 13, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

‘গিফট কার্ড’ বিক্রি করতে পারবে না ইভ্যালি, নির্দেশ সরকারের

এ কার্যক্রম বন্ধ না করলে ইভ্যালির বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে



আপডেট : ০২ নভেম্বর ২০২২, ০৫:৫১ পিএম

ই-কমার্স প্রতিষ্ঠান ইভ্যালিকে গিফট কার্ড, ভাউচার, ওয়ালেট, ক্যাশ ভাউচারসহ বিভিন্ন ডিজিটাল সামগ্রী বিক্রি বন্ধের নির্দেশ দিয়েছে সরকার। নির্দেশনা না মানলে কঠোর আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণের কথাও বলা হয়েছে।

মঙ্গলবার (১ নভেম্বর) বাণিজ্য মন্ত্রণালয় ইভ্যালিকে চিঠি পাঠিয়ে জানিয়েছে, ই-কমার্স প্রতিষ্ঠানটি বেআইনিভাবে ‘গিফট কার্ড' বিক্রি করছে। এ কার্যক্রম বন্ধ না করলে ইভ্যালির বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

এর আগে, ইভ্যালি নিজস্ব ভেরিফায়েড ফেসবুক পেজের মাধ্যমে ২৪-৫৯ শতাংশ ছাড়ে বিভিন্ন ধরনের গিফট কার্ড, গিফট ভাউচার, ওয়ালেট, ক্যাশ ভাউচার বিক্রির বিজ্ঞাপন প্রচার শুরু করে।

ডিজিটাল কমার্স পরিচালনা নির্দেশিকা অনুযায়ী গিফট ভাউচার বিক্রির নিয়ম নেই। কিন্তু ইভ্যালি তা করছে। এজন্যই এ কার্যক্রম বন্ধে চিঠি পাঠানো হয়েছে।

২০২১ সালের ৪ জুলাই জারি হওয়া ডিজিটাল কমার্স পরিচালনা নির্দেশিকায় বলা হয়েছে, সব ধরনের ডিজিটাল ওয়ালেট, গিফট কার্ড, ক্যাশ ভাউচার বা অন্য কোনও মাধ্যম; যা অর্থের বিকল্প হিসেবে ব্যবহৃত হতে পারে, তা বাংলাদেশ ব্যাংকের বিদ্যমান নীতিমালা অনুসরণ এবং প্রয়োজনীয় ক্ষেত্রে বাংলাদেশ ব্যাংকের অনুমতি ছাড়া তৈরি, ব্যবহার বা কেনাবেচা করা যাবে না।

গত ২৮ অক্টোবর হাইকোর্টের আদেশের পর ইভ্যালির কার্যক্রম পুনরায় চালু হয়। কোম্পানিটি পরিচালনার জন্য পাঁচ সদস্যের নতুন একটি পরিচালনা পর্ষদও গঠন করা হয়। নতুন বোর্ডে ইভ্যালির সাবেক চেয়ারম্যান শামীমা নাসরিন, শামীমার মা ফরিদা তালুকদার লিলি এবং তার বোনের স্বামী মো. মামুনুর রশীদকে অন্তর্ভুক্ত করা হয়।

গত বছরের ১৬ সেপ্টেম্বর এক গ্রাহকের দায়ের করা মামলায় ইভ্যালি প্রধান মোহাম্মদ রাসেল ও তার স্ত্রী শামীমা নাসরিনকে গ্রেপ্তার করে র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব)। এরপর জিজ্ঞাসাবাদের জন্য তাদের রিমান্ডে নেওয়া হয়। গ্রেপ্তারের আট মাস পর (৮ এপ্রিল) শামীমা সব মামলায় জামিন পান।

About

Popular Links