Sunday, June 16, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

ধারালো বঁটিতে গলাকাটা যুবক, পুলিশের দাবি ‘আত্মহত্যা’

পুলিশের দাবি, হতাশা থেকে ওই যুবক আত্মহত্যা করে থাকতে পারেন

আপডেট : ২৯ এপ্রিল ২০২৩, ১০:৩৯ পিএম

ঢাকার পল্লবীতে ধারালো বঁটিতে গলাকাটা এক যুবকের মরদেহ উদ্ধারের খবর পাওয়া গেছে। মৃতের নাম শেফাত আকবর ওরফে প্রত্যয় (৩৩)। 

ঘটনাস্থলের আশপাশের লোকজনের বরাত দিয়ে পুলিশের দাবি, হতাশা থেকে ওই যুবক আত্মহত্যা করে থাকতে পারেন।

শনিবার (২৯ এপ্রিল) সকাল ৯টার দিকে মরদেহ উদ্ধার করা হয়। ময়নাতদন্তের জন্য তার মরদেহ শহীদ সোহরাওয়ার্দী মোডিকেল কলেজের মর্গে রাখা হয়েছে।

মৃত শেফাত আকবরের গ্রামের বাড়ি যশোর শহরের বেজপাড়ায়। তিনি পল্লবীর দুই নম্বর সড়কের সি ব্লকের পাঁচ নম্বর বাসার তৃতীয় তলায় কয়েকজন মিলে ভাড়া থাকতেন। চাকরি করতেন একটি বায়িং হাউসে।

পরিবারের বরাত দিয়ে পুলিশ জানায়, পড়াশোনা শেষে রাশিয়া থেকে ফিরে বিয়ে করেন শেফাত। পরে বিচ্ছেদ হয়। এছাড়া কাঙ্ক্ষিত চাকরিও পাননি। সবমিলিয়ে অবসাদে ভুগছিল সে। এজন্য তিনি একজন চিকিৎসকের ব্যবস্থাপত্র অনুযায়ী ওষুধ সেবন করছিলেন।

পুলিশ জানায়, সকাল আটটার দিকে জাতীয় জরুরি সেবা নম্বরে (৯৯৯) ফোন পেয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে ওই যুবকের গলাকাটা মরদেহ উদ্ধার করা হয়। ঘটনাস্থলে একটি চিরকুটও পাওয়া গেছে।

এ বিষয়ে পল্লবী থানার উপপরিদর্শক (এসআই) দেবাশীষ হালদার বলেন, “ঘটনাস্থলের আশপাশের লোকজনকে জিজ্ঞাসাবাদ করে তিনি জানতে পারেন, হতাশা থেকে শেফাত আকবর ধারালো বঁটি দিয়ে নিজের গলা কেটে আত্মহত্যা করেছেন।”

ঢাকার পল্লবী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) পারভেজ ইসলাম বলেন, “শেফাত আকবরের মরদেহ উদ্ধারের পর তার পরিবার ও একজন চিকিৎসকের সঙ্গে কথা বলে জানতে পারেন, দীর্ঘদিন ধরে তিনি মানসিক অবসাদে ভুগছিলেন। তিনি একজন চিকিৎসকের ব্যবস্থাপত্র অনুযায়ী ওষুধ সেবন করছিলেন।”

পরিবারের বরাত দিয়ে ওসি জানান, শেফাত আকবর রাশিয়ায় লেখাপড়া শেষে বছর তিনেক আগে দেশে ফেরেন। পরে তিনি বিয়ে করেন। তবে স্ত্রীর সঙ্গে তার মধ্যে বিচ্ছেদ হয়েছে। কাঙ্ক্ষিত চাকরি না পাওয়াসহ পারিবারিক বিভিন্ন কারণে হতাশাগ্রস্ত হয়ে পড়েন শেফাত আকবর।

About

Popular Links