Thursday, May 23, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

হাইকোর্ট: আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর অপরাধ তদন্তে স্বাধীন কমিশন কেন নয়

রিট আবেদনে বলা হয়, ন্যায়বিচারের জন্য প্রধান শর্ত, সঠিক ও নিরপেক্ষ তদন্ত

আপডেট : ২৮ নভেম্বর ২০২১, ০৩:৫৪ পিএম

পুলিশসহ আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যদের বিরুদ্ধে ওঠা অভিযোগের ক্ষেত্রে স্বাধীন তদন্তে কমিশন গঠন করতে কেন নির্দেশ দেওয়া হবে না, তা জানতে চেয়ে রুল জারি করেছেন হাইকোর্ট।

রবিবার (২৮ নভেম্বর) বিচারপতি মো. মজিবুর রহমান মিয়া ও বিচারপতি মো. কামরুল হোসেন মোল্লার সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্ট বেঞ্চ এ রুল জারি করেন।

এ বিষয়ে “পুলিশ অভিযোগ তদন্ত কমিশন” নামে একটি স্বাধীন কমিশন গঠনের নির্দেশনা চেয়ে সুপ্রিম কোর্টের ১০২ জন আইনজীবী এ বছরের ২৮ ফেব্রুয়ারি একটি রিট করেন। রবিবা সেই রিটের ওপর শুনানির আদেশ দেন আদালত।

বিবাদীদের তিন সপ্তাহের মধ্যে রুলের জবাব দিতে বলা হয়েছে।

আদালতে রিটের পক্ষে শুনানি করেন আইনজীবী মোহাম্মদ শিশির মনির। রাষ্ট্রপক্ষে শুনানি করেন অ্যাটর্নি জেনারেল এ এম আমিন উদ্দিন। সঙ্গে ছিলেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল নওরোজ মো. রাসেল চৌধুরী।

রিট আবেদনে বলা হয়, ন্যায়বিচারের জন্য প্রধান শর্ত, সঠিক ও নিরপেক্ষ তদন্ত। সংবিধানের ৩৫(৩) ও ২৭ অনুচ্ছেদ অনুযায়ী অপরাধের সুষ্ঠু তদন্ত ব্যক্তির মৌলিক অধিকার। বর্তমান আইনি কাঠামোতে পুলিশের বিরুদ্ধে আনা অভিযোগের তদন্তভার পুলিশের ওপরই ন্যস্ত। এতে তদন্ত প্রক্রিয়ার স্বচ্ছতা নিয়ে প্রশ্ন ওঠে।

রিট আবেদনকারীরা উল্লেখ করেন, ২০০৭ সালে পুলিশ অধ্যাদেশ নামে আইনের খসড়া প্রস্তুত করা হয়। প্রস্তাবিত অধ্যাদেশের ৭১ দফায় “পুলিশ অভিযোগ তদন্ত কমিশন” গঠনের বিধান প্রস্তাব করা হয়। তবে ওই খসড়া অধ্যাদেশ আইনে পরিণত হয়নি। 

কমিশন গঠনের সম্ভাব্যতা যাচাইয়ে অবসরপ্রাপ্ত বিচারপতি, অবসরপ্রাপ্ত পুলিশ মহাপরিদর্শক, অবসরপ্রাপ্ত সচিব, আইনের শিক্ষক ও সুশীল সমাজের প্রতিনিধিদের সমন্বয়ে একটি কমিটি গঠনের নির্দেশনাও চাওয়া হয় রিটে।

About

Popular Links