Tuesday, May 28, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

ইসি: সুষ্ঠু পরিবেশে ভোট হচ্ছে

‘অভিজাত এলাকায় অনেকে হয়তো এ ভোট নিয়ে অতটা আগ্রহী না–ও হতে পারে। তবে ভোট পড়ার হার বাড়বে বলে আমরা ধারণা’

আপডেট : ১৭ জুলাই ২০২৩, ০৪:০১ পিএম

ঢাকা-১৭ আসনের উপনির্বাচনে ভোটার উপস্থিতি তুলনামূলক কম হলেও সুষ্ঠু পরিবেশে ভোট হচ্ছে বলে জানিয়েছেন নির্বাচন কমিশনার বেগম রাশেদা সুলতানা। তিনি বলেন, সংসদের মেয়াদের শেষ দিকে ভোট হওয়ার কারণে জনগণের আগ্রহ কম। ভোটার কম হওয়ার আসল কারণ পরে জানা যাবে।”

সোমবার (১৭ জুলাই) ঢাকা-১৭ আসনের একটি কেন্দ্র পরিদর্শন ও নির্বাচন ভবনে সিসিটিভিতে ভোট পর্যবেক্ষণের এক পর্যায়ে তিনি সাংবাদিকদের এসব কথা বলেন।

রাশেদা সুলতানা সাংবাদিকদের বলেন, “ঢাকার বনানী বিদ্যানিকেতন কেন্দ্রে গিয়েছিলাম। ভোটের পরিবেশ ভালো। আইনশৃঙ্খলা বাহিনী দেখেছি। কয়েকজন প্রার্থীর এজেন্টদের দেখেছি। নৌকা প্রতীকের এজেন্টকে পেয়েছি। প্রিজাইডিং অফিসার বলেছেন তালিকার কিছু এজেন্ট আসেন নাই, হয়তো পৌঁছাবে। ভোটারদের বাধা দেওয়া, প্রতিবন্ধকতা ছিল না। সিসিটিভি ক্যামেরায়ও ক্যামেরায়ও অনিয়মের চিত্র দেখিনি। কোনো অভিযোগও কেউ দেয়নি।”

ভোটার উপস্থিতি কম হওয়ার বিষয়ে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, “আমরাও দেখেছি ভোটার উপস্থিতি কম। কারণ হিসেবে আমার ব্যক্তিগত ধারণা, স্বল্প সময়ের মেয়াদ আছে এ সংসদের, এ জন্য ভোটারদের আগ্রহ কম হতে পারে। আর অভিজাত এলাকায় অনেকে হয়তো এ ভোট নিয়ে অতটা আগ্রহী না–ও হতে পারে। তবে ভোট পড়ার হার বাড়বে বলে আমরা ধারণা।”

স্বতন্ত্র প্রার্থী তারেকুল ইসলাম ভুঞা ভোট বর্জন করেছেন। এ বিষয়ে নির্বাচন কমিশনার রাশেদা সুলতানা বলেন, “গণমাধ্যমে দেখলাম। অভিযোগ থাকতে পারে, এটা সত্য বা মিথ্যা, তা কিন্তু নয়। সত্যতা যাচাই করে আইনগত ব্যবস্থা নেব। তবে এত অল্প সময়ে কেন বর্জন করলেন, বুঝতে পারলাম না। শেষ পর্যন্ত দেখতে পারতেন। যদি সকালেই ভোট বর্জন করেন তাহলে তো উনি দেখতে পারলেন না শেষ পর্যন্ত কী হলো।”

নিজেদের কাজে ঘাটতি নেই এমনটা জানিয়ে নির্বাচন কমিশনার আহসান হাবিব খান বলেন, “দূর থেকে কাশবন ঘন লাগে। কাছে গেলে ফাঁকা ফাঁকা লাগে। আমাদের মুভমেন্ট কর্মকাণ্ড কাছ থেকে আপনারা (সাংবাদিকরা) দেখেছেন, আপনাদের কী মনে হয়? আমাদের কি আন্তরিকতার ঘাটতি ছিল? আমরা চেষ্টা করে যাচ্ছি। ভোটার উপস্থিতি কম হতে পারে।”

ভান্ডারিয়া পৌরসভা নির্বাচনে সিসিটিভির তার কেটে ফেলা প্রসঙ্গে তিনি বলেন, “ভান্ডারিয়া পৌরসভায় কয়েকজন দুষ্কৃতকারী চার-পাঁচটি কেন্দ্রের সিসিটিভি ক্যামেরার ক্যাবল কেটে ফেলেছে। কাটা পড়েছে বললাম না। সকাল থেকে ডিসি, এসপি, গোয়েন্দা সংস্থা লাগিয়ে চেক করেছি এবং ওপরের ফুটেজ দেখে চিহ্নিত করার চেষ্টা করেছি। এতে কিন্তু ভোটের অসুবিধা হচ্ছে না। ইভিএমে যেহেতু সুযোগ নাই। দুই পক্ষে উপস্থিতিই ব্যালেন্স করছে।”

কেন্দ্রে গণমাধ্যমকর্মী ঢুকতে না দেওয়ার অভিযোগের বিষয়ে এই কমিশনার বলেন, “এই অভিযোগটা পেয়েছি। ক্যান্টনমেন্ট কেন্দ্রে সাংবাদিককে ঢুকতে দেওয়া হয়নি। এটার ব্যবস্থা নেওয়া হবে। গোপন কক্ষ বাদে সাংবাদিকরা সব জায়গায় যেতে পারবেন। কাজেই এটা অন্যায় হয়েছে। এর বিচার হওয়া উচিত। আমরা ওটা ছাড়বো না।”

About

Popular Links