Monday, May 27, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

ঝালকাঠিতে সড়ক দুর্ঘটনার কারণ খুঁজতে তদন্ত কমিটি

যাত্রীবাহী বাসটি পিরোজপুরের ভান্ডারিয়া থেকে বরিশালের দিকে যাচ্ছিল

আপডেট : ২২ জুলাই ২০২৩, ১০:১২ পিএম

ঝালকাঠির ছত্রকান্দা এলাকার বাস দুর্ঘটনার কারণ অনুসন্ধানে ৫ সদস্যের তদন্ত কমিটি গঠন করেছে জেলা প্রশাসন। আগামী ৩ দিনের মধ্যে তদন্ত করে কমিটিকে প্রতিবেদন জমা দিতে বলেছেন জেলা প্রশাসক ফারাহ গুল নিঝুম।

জেলা প্রশাসক ফারাহ গুল নিঝুম স্বাক্ষরিত তদন্ত কমিটিতে অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট (এডিএম) মোহাম্মদ মামুন শিবলীকে প্রধান করা হয়েছে।

শনিবার (২২ জুলাই) সকাল ৯টা ৫৫ মিনিটে পিরোজপুরের ভান্ডারিয়া উপজেলা থেকে বরিশালগামী বাসটি স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদ কার্যালয়ের পাশে পুকুরে পড়ে গেলে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

ঝালকাঠির সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নাসির উদ্দীন সরকার জানান, “বাসার স্মৃতি” নামের বাসটি ৬৫ জন যাত্রী নিয়ে পিরোজপুরের ভান্ডারিয়া থেকে বরিশালের দিকে যাচ্ছিল। পথে বরিশাল-খুলনা আঞ্চলিক মহাসড়কের ঝালকাঠি সদরের ধানসিঁড়ি ইউনিয়ন পরিষদসংলগ্ন একটি পুকুরে বাসটি পড়ে যায়।

খবর পেয়ে পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা উদ্ধারকাজ শুরু করে। ঘটনাস্থল থেকে ১৭টি লাশ উদ্ধার করে ঝালকাঠি সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। এর মধ্যে আটজন নারী, ছয়জন পুরুষ ও তিনটি শিশু। আহত অবস্থায় অন্তত ২৫ জনকে উদ্ধার করা হয়েছে। মৃতের সংখ্যা আরও বাড়তে পারে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

নিহতরা হলেন- তারিক রহমান (৪৫), শাহীন মোল্লা (২৫), সুমাইয়া (৬), খাদিজা বেগম (৪৩), রহিমা বেগম (৬০), আবদুস সালাম মোল্লা (৬০), খুশবু আক্তার (১৭), আবদুল্লাহ (৮), আবুল কালাম হাওলাদার, রিপমনি, রহিমা বেগম (৬০), আবুল কালাম হাওলাদার, রিপমনি, রহিমা বেগম (৬০), সালমা আক্তার মিতা (৪২), ফারুক হোসেন খান (৫৫), সাবিহা বেগম (২২) ও পারভিন বেউম (৫০)।

আহতদের মধ্যে ২১ জন ঝালকাঠি জেলা হাসপাতালে চিকিৎসা নিচ্ছেন, নাম জানা যায়নি দুজনকে বরিশাল মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

শনিবার বিকেলে ঝালকাঠি জেলা হাসপাতালে আহতদের দেখতে গিয়ে জেলা প্রশাসক ফারাহ গুল নিঝুম হতাহতদের উন্নত চিকিৎসার খরচ জেলা প্রশাসন বহন করবে বলে ঘোষণা দেন।

ঝালকাঠির পুলিশ সুপার মুহাম্মদ আফরুজুল হক টুটুল জানান, এ ঘটনায় থানায় মামলা করা হবে।

About

Popular Links