Saturday, May 25, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

পাহাড়ি ঢলে বাড়ছে কাপ্তাই হ্রদের পানি, সচল পানিবিদ্যুৎ কেন্দ্রের পাঁচটি ইউনিট

পাঁচটি ইউনিট থেকে সর্বমোট ১৩৫ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ উৎপাদন হচ্ছে এখন

আপডেট : ০৬ আগস্ট ২০২৩, ০৭:৪৪ পিএম

গত দুই দিন ধরে প্রবল বৃষ্টি ও উজান থেকে নেমে আসা পাহাড়ি ঢলের কারণে রাঙ্গামাটি কাপ্তাই হ্রদের পানি বাড়ছে। ফলে বৃদ্ধি পেয়েছে কাপ্তাইয়ে অবস্থিত পানিবিদ্যুৎ কেন্দ্রে বিদ্যুৎ উৎপাদনও। এতে সচল হয়ে উঠেছে পানিবিদ্যুৎ কেন্দ্রের পাঁচটি ইউনিট। এগুলো থেকে সর্বমোট ১৩৫ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ উৎপাদন হচ্ছে এখন।

রবিবার (৬ আগস্ট) বিষয়টি ঢাকা ট্রিবিউনকে নিশ্চিত করেছেন কর্ণফুলী পানিবিদ্যুৎ কেন্দ্রের ব্যবস্থাপক প্রকৌশলী এ টি এম আব্দুজ্জাহের।

তিনি জানান, গত কয়েক দিনের বৃষ্টি এবং পাহাড়ি ঢলে কাপ্তাই হ্রদের পানি বৃদ্ধি পাচ্ছে। রুলকার্ভ (পানির পরিমাপ) অনুযায়ী কাপ্তাই হ্রদে এই মুহূর্তে (রবিবার সকাল ১০টায়) ৯০.৬০ ফুট মিনস সি লেভেল (এম এস এল) পানি থাকার কথা। কিন্তু লেকে এখন পানি রয়েছে ৮২.৯০ ফুট এমএসএল। কাপ্তাই লেকে পানির ধারণক্ষমতা ১০৯ ফুট এমএসএল।

পাহাড়ি ঢল-কাপ্তাই হ্রদ

তিনি আরও জানান, পানি বাড়ার কারণে বর্তমানে এই কেন্দ্রের পাঁচটি ইউনিটের সবগুলোই সচল রয়েছে। এই পাঁচ ইউনিট থেকে বর্তমানে ১৩৫ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ উৎপন্ন হচ্ছে। রবিবার সকাল ১০টা পর্যন্ত ১ নম্বর ইউনিট থেকে ৩৩ মেগাওয়াট, ২ নম্বর ইউনিট থেকে ৩২ মেগাওয়াট, ৩ নম্বর ইউনিট থেকে ২৬ মেগাওয়াট, ৪ ও ৫ নম্বর ইউনিট থেকে প্রতিটিতে ২২ মেগাওয়াট করে বিদ্যুৎ উৎপাদন হচ্ছে। পানি বাড়লে বিদ্যুৎ উৎপাদন আরও বাড়বে।

উৎপাদিত বিদ্যুতের পুরোটাই জাতীয় গ্রিডে সঞ্চালন করা হচ্ছে বলে জানান তিনি। 

প্রসঙ্গত, পানির ওপর নির্ভরশীল কাপ্তাইয়ের কর্ণফুলী পানিবিদ্যুৎ কেন্দ্রে এত দিন পানির অভাবে শুধু দুই থেকে তিনটি ইউনিট রেশনিং করে চালু রেখে বিদ্যুৎ উৎপাদন করা হয়েছিল। বর্তমানে পানি বাড়ার ফলে পাঁচটি ইউনিট সচল করা হয়েছে। এই পাঁচ ইউনিটের বিদ্যুৎ উৎপাদন ক্ষমতা ২৩০ মেগাওয়াট।

About

Popular Links