Thursday, May 30, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

কুড়িগ্রামে বিপৎসীমার ৩৭ সেন্টিমিটার ওপরে তিস্তার পানি

বিপৎসীমার ওপর দিয়ে তিস্তার পানি প্রবাহিত হওয়ায় কুড়িগ্রামের রাজারহাট, উলিপুর ও চিলমারী উপজেলার ২৫টি গ্রাম ও চর প্লাবিত হতে শুরু করেছে। তলিয়ে গেছে রাস্তাঘাট ও আমন ধানের খেত

আপডেট : ১৫ আগস্ট ২০২৩, ০১:৪৪ পিএম

কুড়িগ্রামে তিস্তা নদীর পানি বেড়ে বিপৎসীমার ৩৭ সেন্টিমিটার ওপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। পানি উন্নয়ন বোর্ড বলছে, উজান থেকে আসা পানির কারণে তিস্তার পানি বাড়ছে। পানি বাড়লেও বড় ধরনের বন্যার শঙ্কা নেই।

কুড়িগ্রাম পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী আব্দুল্ল্যাহ আল মামুন জানান, মঙ্গলবার (১৫ আগস্ট) সকাল ৯টায় তিস্তার পানি বিপৎসীমার ৩৭ সেন্টিমিটার ওপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছিল। আগামী ২৪ ঘণ্টার মধ্যে কুড়িগ্রামে তিস্তার পানি বিপৎসীমার নিচে চলে আসবে। এক প্রতিবেদনে এই তথ্য জানিয়েছে ইংরেজি ভাষার সংবাদমাধ্যম ডেইলি স্টার।

বিপৎসীমার ওপর দিয়ে তিস্তার পানি প্রবাহিত হওয়ায় কুড়িগ্রামের রাজারহাট, উলিপুর ও চিলমারী উপজেলার ২৫টি গ্রাম ও চর প্লাবিত হতে শুরু করেছে। তলিয়ে গেছে রাস্তাঘাট ও আমন ধানের খেত।

কুড়িগ্রামে পানি বাড়লেও লালমনিরহাটে তিস্তার পানি কমতে শুরু করেছে। লালমনিরহাট পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী শুনীল কুমার সংবাদমাধ্যম ডেইলি স্টারকে জানান, লালমনিরহাটের হাতীবান্ধা উপজেলায় তিস্তা ব্যারেজ এলাকায় ডালিয়া পয়েন্টে তিস্তার পানি বিপৎসীমার নিচে রয়েছে। তবে ব্যারেজের ভাটিতে তিস্তার পানি এখনো বিপৎসীমার ওপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। এই মুহূর্তে তিস্তাপাড়ে বড় ধরনের বন্যা পরিস্থিতির কোনো আশঙ্কা নেই।

About

Popular Links