Sunday, June 16, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

ঢাকার চেয়ে দূষিত বাতাস নেই পৃথিবীর কোথাও

বিশ্বের দূষিত বাতাসের শহরের তালিকায় আবারও ঢাকা প্রথম স্থানে উঠে এসেছে। ঢাকার বাতাসকে ‘বিপজ্জনক’ হিসেবে চিহ্নিত করা হয়েছে

আপডেট : ২২ ডিসেম্বর ২০২৩, ১২:১৬ পিএম

বিশ্বের দূষিত বাতাসের শহরের তালিকায় আবারও ঘনবসতিপূর্ণ ঢাকা প্রথম স্থানে উঠে এসেছে। বিগত দিনগুলোতে বায়ুদূষণে নিয়মিত এক-দুই বা তিনে থাকা ঢাকার বাতাসের মান আজ অত্যন্ত খারাপ।

শুক্রবার (২২ ডিসেম্বর) সকাল ৮টা ৫০ মিনিটে বায়ুমান সূচক একিউআই-এ ৩২৮ স্কোর নিয়ে ঢাকার অবস্থান শীর্ষে। এজন্য ঢাকার বাতাসকে “বিপজ্জনক” হিসেবে চিহ্নিত করা হয়েছে।

ভারতের দিল্লি, পাকিস্তানের লাহোর এবং উজবেকিস্তানের তাসখন্দ যথাক্রমে ৩১১, ২৬৮ এবং ২০৮ একিউআই স্কোর নিয়ে তালিকার দ্বিতীয়, তৃতীয় এবং চতুর্থ স্থানে রয়েছে।

প্রতিদিনের বাতাসের মান নিয়ে তৈরি করা একিউআই সূচক একটি নির্দিষ্ট শহরের বাতাস কতটুকু নির্মল বা দূষিত সে সম্পর্কে তথ্য দেয়। পাশাপাশি সেই শহরের বাসিন্দাদের জন্য কোন ধরনের স্বাস্থ্য ঝুঁকি তৈরি হতে পারে তা জানায়।

একিউআই স্কোর ১০১ থেকে ২০০ হলে সংবেদনশীল গোষ্ঠীর জন্য “অস্বাস্থ্যকর” ধরা হয়। ২০১ থেকে ৩০০ একিউআই স্কোরকে “খুব অস্বাস্থ্যকর” বলে মনে করা হয় এবং ৩০১ থেকে ৪০০ একিউআই স্কোরকে “বিপজ্জনক” হিসেবে বিবেচনা করা হয়, যা বাসিন্দাদের জন্য গুরুতর স্বাস্থ্য ঝুঁকি তৈরি করে।

বাংলাদেশে একিউআই নির্ধারণ করা হয় দূষণের পাঁচটি বৈশিষ্ট্যের ওপর ভিত্তি করে। সেগুলো হলো- বস্তুকণা (পিএম১০ ও পিএম২.৫), এনও২, সিও, এসও২ ও ওজোন (ও৩)।

দীর্ঘদিন ধরে বায়ু দূষণে ভুগছে ঢাকা। এর বাতাসের গুণমান সাধারণত শীতকালে অস্বাস্থ্যকর হয়ে যায় এবং বর্ষাকালে কিছুটা উন্নত হয়। ২০১৯ সালের মার্চে পরিবেশ অধিদপ্তর ও বিশ্বব্যাংকের একটি প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়, ঢাকার বায়ু দূষণের তিনটি প্রধান উৎস হলো- ইটভাটা, যানবাহনের ধোঁয়া ও নির্মাণস্থানের ধুলা।

About

Popular Links