Sunday, May 19, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

তেজগাঁওয়ে বস্তিতে আগুন: দগ্ধ নারী বার্ন ইনস্টিটিউটে ভর্তি

‘ঘর থেকে সন্তানকে উদ্ধারের সময় নাজমা দগ্ধ হন। তাকে উদ্ধার করে শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন ও প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটে আনা হয়’

আপডেট : ১৩ জানুয়ারি ২০২৪, ০২:২৬ পিএম

রাজধানী ঢাকার তেজগাঁও এলাকায় বাংলাদেশ চলচ্চিত্র উন্নয়ন কর্পোরেশনের (বিএফডিসি) গেট সংলগ্ন মোল্লাবাড়ি বস্তিতে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় দুইজন দগ্ধ হয়েছেন। তারা হলেন- নাজমা (২৫) ও তার সন্তান নজরুল (৪)। নাজমাকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন ও প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটে ভর্তি করা হয়েছে।

শনিবার (১৩ জানুয়ারি) ঢাকা ট্রিবিউনকে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন বার্ন ইনস্টিটিউটে আবাসিক চিকিৎসক মো. তরিকুল ইসলাম।

তিনি বলেন, “আমাদের এখানে নাজমা ও তার শিশুসন্তান নজরুলকে আনা হয়। তাদের মধ্যে নাজমাকে ভর্তি করা হয়েছে। তার শরীরের ২৩% দগ্ধ হয়েছে। শিশুটিকে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে ছেড়ে দেওয়া হয়েছে।”

নাজমার শ্বশুর আব্দুল মালেক বলেন, “শুক্রবার দিবাগত রাতে ‘আগুন’ ‘আগুন’ চিৎকার শুনে ঘুমন্ত সন্তানকে ঘরে রেখে বাইরে বের হন নাজমা ও তার স্বামী ওমর ফারুক। ততোক্ষণে আগুন ছড়িয়ে তাদের ঘর পর্যন্ত চলে আসে। পরে ঘর থেকে সন্তানকে উদ্ধারের সময় নাজমা দগ্ধ হন। নজরুল ও নাজমাকে উদ্ধার করে শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন ও প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটে আনা হয়।”

নাজমার স্বামী ওমর ফারুক কাওরান বাজার এলাকায় দিনমজুরের কাজ করেন। তার আরেক সন্তান নাজমুল হাসান (১০) মাদ্রাসায় পড়ে। ঘটনার সময়ে সে মাদ্রাসায় ছিল। নারায়ণগঞ্জ আড়াইহাজারের দাসপাড়া তাদের গ্রামের বাড়ি।

ফায়ার সার্ভিসের পরিচালক (অপারেশন ও মেইনটেন্যান্স) লেফটেন্যান্ট কর্নেল মোহাম্মদ তাজুল ইসলাম চৌধুরী জানান, শুক্রবার দিবাগত রাত ২টা ২৮ মিনিটে তারা আগুন লাগার খবর পান। ১৩টি ইউনিট আগুন নিয়ন্ত্রণে আনতে কাজ করে। প্রায় সোয়া এক ঘণ্টার চেষ্টায় আগুন নিয়ন্ত্রণে আসে। তেজগাঁও, মোহাম্মদপুর, সিদ্দিকবাজার ও মিরপুর ফায়ার স্টেশনের একাধিক ইউনিট আগুন নিয়ন্ত্রণে কাজ করে।

এ ঘটনায় ঘটনাস্থল থেকে দুইজনের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। মরদেহ দুটি ময়নাতদন্তের জন্য সোহরাওয়ার্দী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে তেজগাঁও শিল্পাঞ্চল থানার-পুলিশ। এখনও তাদের পরিচয় পাওয়া যায়নি।

About

Popular Links