Sunday, May 19, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে কথা বলতে চান বিমান ছিনতাইকারী

রোববার বিকেলে ৫টা ৪০ মিনিটে এ ঘটনা ঘটে।

আপডেট : ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ০৭:১৭ পিএম

ঢাকা থেকে চট্টগ্রাম হয়ে দুবাইগামী বাংলাদেশ বিমানের একটি ফ্লাইট (বিজি-১৪৭)ছিনতাইয়ের চেষ্টা হয়েছে। বিমানটি চট্টগ্রামের শাহ আমানত বিমানবন্দরে জরুরি অবতরণ করানো হয়। 

বিমানটির ছিনতাইকারী প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে কথা বলতে চান বলে জানিয়েছেন চট্টগ্রাম-৮ আসনের সংসদ সদস্য (এমপি) মঈন উদ্দীন খান বাদল। 

আজ রোববার বিকেলে ৫টা ৪০ মিনিটে এ ঘটনা ঘটে। বিমানটিতে মঈন উদ্দীন খান বাদল অবস্থান করছিলেন। পরে তাকে অন্য যাত্রীদের সঙ্গে বিমান থেকে নিরাপদে নামিয়ে আনা হয়। 

বাদল বলেন, 'ওই ব্যক্তি একটি গুলি করেন। তিনি প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে কথা বলতে চান।' 

এদিকে বাংলাদেশ বিমানের ওই ফ্লাইটটি (বিজি-১৪৭) পুলিশ, র‍্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‍্যাব) ও এপিবিএন সসদ্যরা ঘিরে রেখেছে। 

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক সূত্র থেকে জানা গেছে, ঢাকা বিমানবন্দর থেকে উড্ডয়নের পর পরই যাত্রীবেশে সশস্ত্র দুর্বৃত্ত বিমানের নিয়ন্ত্রণ নেওয়ার চেষ্টা করেন। পরে সেটি চট্টগ্রামের শাহ আমানত বিমানবন্দরে অবতরণ করানো হয়। ঘটনাস্থলে ফায়ার সার্ভিস ও অ্যাম্বুলেন্স মোতায়েন রয়েছে।

প্রত্যক্ষদর্শী এক যাত্রী জানান, 'অস্ত্র হাতে এক দুর্বৃত্ত ককপিটে ঢুকতে চাইলে পাইলটরা তাতে বাধা দেন। এ সময় একটি গুলির আওয়াজও তারা শুনতে পান। সন্দেহভাজন ওই ব্যক্তি নিজের বুকে বোমা বাঁধা আছে দাবি করে প্রধানমন্ত্রী এবং সরকারের উর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের সঙ্গে কথা বলতে চান। সব যাত্রী নিরাপদে নেমে গেলেও কেবিন ক্রুদের জিম্মি করে রাখা হয়েছে।'  

বিষয়টি নিশ্চিত করে সিভিল এভিয়েশন সচিব মহিবুল হক বলেন, বিমানের ভেতরে এখনো দুজন ক্রু ও সন্দেহভাজন রয়েছেন।তবে গুলিবিদ্ধ হওয়ার খবর পাওয়া যায়নি।

About

Popular Links