Saturday, June 22, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

ডিবি হারুন: ওয়াটার থিওরি ব্যবহার করে দেহাংশ উদ্ধার হয়েছে

এমপি আনারের কন্যা মুমতারিন ফিরদৌস ডরিনকে কলকাতায় ডাকা হতে পারে

আপডেট : ৩০ মে ২০২৪, ০৬:৫৬ পিএম

বাংলাদেশের সংসদ সদস্য আনোয়ারুল আজীম আনার খুনের ঘটনা তদন্ত করছে ভারত এবং বাংলাদেশের পুলিশ ও গোয়েন্দা বিভাগ। এই খুনের রহস্য উদঘাটনে বেশ কয়েকদিন ধরেই কলকাতার বিভিন্ন স্থান পরিদর্শন ও তদন্ত করেছে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের গোয়েন্দা (ডিবি) প্রধান হারুন অর রশীদের নেতৃত্বে চার সদস্যের একটি প্রতিনিধি দল।

এদিকে বৃহস্পতিবার (৩০ নভেম্বর) স্থানীয় সময় বেলা ১১টা ৪৭ মিনিটে বাংলাদেশের উদ্দেশে নিউটাউনের একটি পাঁচ তারকা হোটেল থেকে বেরিয়ে যান  হারুন এবং গোয়েন্দা প্রতিনিধি দলের অন্য সদস্যরা। কলকাতা ছাড়ার আগে বাংলাদেশ এবং ভারতের বিভিন্ন গণমাধ্যমের সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাব দেন হারুন।

তিনি বলেন, ‘‘কলকাতায় খুন হওয়া বাংলাদেশের এমপি আনোয়ারুল আজীম আনার হত্যাকাণ্ডে ইতোমধ্যে এক নারীসহ তিন অভিযুক্তকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

হারুন বলেন, ‘‘আমরা এক্ষেত্রে ওয়াটার থিওরি ব্যবহার করেছি। আমরা সিআইডি পুলিশকে রিকোয়েস্ট করেছি। আসামিদের ব্যবহৃত কমোড, সেপটিক ট্যাংক চেক করতে বলেছি। সেখান থেকেই মরদেহের অনেক অংশ উদ্ধার হয়েছে। যে উদ্দেশে এসেছিলাম আমরা কিন্তু একশ ভাগ সফলতা নিয়েই বাংলাদেশে ফিরছি।

তিনি বলেন, ‘‘প্রাথমিকভাবে সেপটিক ট্যাংক থেকে উদ্ধার হওয়া মাংস এমপি আনারের মনে করা হলেও এ ব্যাপারে শতভাগ নিশ্চিত হতে ফরেনসিক এবং ডিএনএ টেস্ট জরুরি। আনুষ্ঠানিকভাবে সিআইডিকে চিঠি দিয়ে এসব মাংসের টুকরো বাংলাদেশে নিয়ে যাওয়া হবে। উদ্ধার করা মাংস এমপি আনারের মরদেহের কি না তা পরীক্ষার জন্য ইতোমধ্যে সেন্ট্রাল ফরেনসিক সায়েন্স ল্যাবরেটরিতে (সিএফএসএল) নমুনা পাঠানো হয়েছে। প্রয়োজনে ডিএনএ টেস্টও করা হবে। সেক্ষেত্রে এমপি আনারের কন্যা মুমতারিন ফিরদৌস ডরিনকে কলকাতায় ডাকা হতে পারে।’’

ডিবিপ্রধান বলেন, ‘‘আমরা সিআইডিকে অনুরোধ জানিয়েছি এই পরীক্ষাগুলো যেন দ্রুততার সঙ্গে করা হয়। ডিএনএ টেস্ট করার জন্য এমপি আনারের কন্যা ডরিন শিগগির কলকাতা আসবেন। ভারতে আসার জন্য সম্ভবত তিনি ভিসাও পেয়েছেন।’’

About

Popular Links