Tuesday, May 21, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

হেলপারের ধাক্কায় বাস থেকে পড়ে প্রাণ গেল সিকৃবি ছাত্রের

নিহত শিক্ষার্থী ঘোরী মো. ওয়াসিম সিকৃবির বায়োটেকনোলজি ও জেনেটিক্স ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের ৪র্থ বর্ষের ছাত্র ছিলেন

আপডেট : ২৩ মার্চ ২০১৯, ১০:২৯ পিএম

মৌলভীবাজারে হেলপারের ধাক্কায় বাস থেকে পড়ে প্রাণ হারিয়েছেন সিলেট কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের (সিকৃবি) চতুর্থ বর্ষের এক শিক্ষার্থী। শনিবার বিকেলে মৌলভীবাজারের শেরপুর বিশ্বরোডে এ ঘটনা ঘটে। 

নিহত শিক্ষার্থী ঘোরী মো. ওয়াসিম সিকৃবির বায়োটেকনোলজি ও জেনেটিক্স ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের ৪র্থ বর্ষের ছাত্র ছিলেন এবং হবিগঞ্জের নবীগঞ্জ উপজেলার দেবপাড়া ইউনিয়নের রুদ্র গ্রামের ঘোরী মো. আবু জাহেদ মাহবুব ও ডা. মীনা পারভিনের ছেলে। 

ঘটনার প্রত্যক্ষদর্শী শিক্ষার্থীদের সূত্রে জানা যায়, হবিগঞ্জের দেবপাড়ায় একটি বিয়ের অনুষ্ঠানে গিয়েছিলেন ওয়াসিমসহ ১১ জন শিক্ষার্থী। সেখান থেকে ফেরার সময় তারা রোডের উদার পরিবহনের একটি বাসে ওঠেন। এসময় ভাড়া নিয়ে ঐ বাসের হেলপারের সঙ্গে ওই শিক্ষার্থীদের মধ্যে বাকবিতণ্ডা হয়। এর এক পর্যায়ে বাসের ঐ হেলপার ওয়াসিম এবং আরেক শিক্ষার্থী রাকিবকে ধাক্কা দিয়ে ফেলে দেন। এসময় রাকিব বাস থেকে নামতে সক্ষম হলেও ওয়াসিমের পায়ের উপর দিয়ে বাসের চাকা চলে যায়।

পরবর্তীতে ওয়াসিমকে দ্রুত সিলেট এম এ জি ওসমানী সদর হাসপাতালে নেওয়ার পথেই তারমৃত্যু হয়। ওয়াসিমের মরদেহ বর্তমানে সিলেট ওসমানী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের মর্গে রাখা হয়েছে।

এই ঘটনার প্রেক্ষিতে শিক্ষার্থীরা বাসটি আটক করলেও পালিয়ে যায় বাসের চালক ও হেলপার। পরবর্তীতে বাসটি জব্দ করে মৌলভীবাজার সদর থানা পুলিশ।

এদিকে এই ঘটনার প্রতিবাদে সিকৃবির হুমায়ুন রশীদ চৌধুরী চত্বরে বিক্ষোভ শুরু করেছেন বিশ্ববিদ্যালয়ের সহস্রাধিক শিক্ষার্থী। বাসের হেলপার ও চালকের শাস্তির দাবিতে বিক্ষুব্ধ শিক্ষার্থীরা সিলেট মহাসড়ক থেকে শহরে যানবাহন প্রবেশ বন্ধ করে দিয়েছেন। সিলেটের কদমতলী বাসস্ট্যান্ডে উদার পরিবহনের কাউন্টারেও তারা বিক্ষোভ প্রদর্শন করেন। এছাড়াও সিকৃবির বিক্ষুব্ধ শিক্ষার্থীরা সিলেট এম এ জি ওসমানী হাসপাতালে অবস্থান নিয়েছেন। প্রশাসন উপযুক্ত পদক্ষেপ না নেওয়া পর্যন্ত এই আন্দোলন চালিয়ে যাবেন বলে জানিয়েছেন বিক্ষুব্ধ শিক্ষার্থীরা।

ইতোমধ্যে নিহতের পরিবারের সদস্যরাও ঘটনাস্থলে এসে পৌঁছেছেন। অন্যদিকে সিকৃবির উপাচার্য প্রফেসর মতিয়ার রহমান হাওলাদারও সিলেট এম এ জি ওসমানী হাসপাতালে পৌঁছেছেন। তিনি বলেন, "মানুষের জীবনের মূল্য কমে গেছে, সহনশীলতা কমে গেছে। ওয়াসিমের মৃত্যুর এই ঘটনাকে সড়ক দুর্ঘটনা বলা যায় না, এটা মার্ডার"।

এ প্রসঙ্গে শেরপুর পুলিশ ফাঁড়ির সহকারী উপ-পরিদর্শক মো.শরীফ আহমদ ঢাকা ট্রিবিউনকে রাতে বলেন, "সিলেটের ওসমানীনগর বেগমপুর  নামক স্থানে গিয়ে বাস গাড়ীটি জব্দ করে ওসমানীনগর   থানায় রাখা হয়েছে। চালক ও সহযোগীকে আটকের চেষ্টা চলছে"।

About

Popular Links