Sunday, May 26, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

নিজের বায়োপিকে মন খারাপ সানির!

কেন পেশা হিসেবে পর্নোগ্রাফিকে বেছে নিয়েছিলেন? কীভাবে অ্যাডাল্ট ইন্ডাস্ট্রি থেকে বের হয়ে বলিউড মেইনস্ট্রিমে জায়গা করে নিয়েছেন? এসব প্রশ্নের উত্তরের উপর নির্ভর করেই তৈরি করা হয়েছে বায়োপিক ‘করণজিৎ কউর: দ্য আনটোল্ড স্টোরি অফ সানি লিওন’।

আপডেট : ৩০ জুলাই ২০১৮, ০৯:৫৯ এএম

মুক্তি পেয়েছে সানি লিওনের জীবনীনির্ভর ওয়েব সিরিজ ‘করণজিৎ কউর: দ্য আনটোল্ড স্টোরি অফ সানি লিওন’। বায়োপিকটি নিয়ে দর্শকরাও মিশ্র প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন। তবে, নিজের জীবনী পর্দায় দেখে নাকি মন খারাপ হয়েছে স্বয়ং সানি লিওনের।

সানির মা মারা যান ২০০৮ সালে। আর ক্যানসারে আক্রান্ত হয়ে দীর্ঘদিন অসুস্থ থাকার পর ২০১০ সালে মারা যান সানির বাবা। বায়োপিকের ওই দৃশ্যগুলো দেখেই মন খারাপ হয়েছে এই ভারতীয় অভিনেত্রীর। মিড ডে-কে দেওয়া সাম্প্রতিক এক সাক্ষাৎকারে সানি বলেন, “আমি জানি, যারা অভিনয় করেছেন, তারা আমার আসল বাবা-মা নন। কিন্তু, অনস্ক্রিনে বাবাকে কত্যানসারে ভুগতে দেখা বা অনস্ক্রিন মাকে কফিনে শুয়ে থাকতে দেখাটা মেনে নেওয়া সহজ কিছু নয়। বাবা-মা মারা যাওয়ার পর ভেবেছিলাম সত্যিটা মেনে নিতে পারব। কিন্তু, সত্যিটা বোধহয় এখন্ও মানতে পারি না।”  

বর্তমানে তিন সন্তানের মা সানি লিওন কেন পেশা হিসেবে পর্নোগ্রাফিকে বেছে নিয়েছিলেন? কীভাবে অ্যাডাল্ট ইন্ডাস্ট্রি থেকে বের হয়ে বলিউড মেইনস্ট্রিমে জায়গা করে নিয়েছেন? এসব প্রশ্নের উত্তরের উপর নির্ভর করেই তৈরি করা হয়েছে বায়োপিক ‘করণজিৎ কউর: দ্য আনটোল্ড স্টোরি অফ সানি লিওন’।     


About

Popular Links