• রবিবার, মে ১৯, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ০৩:৪৮ বিকেল

ভাইরাল ভিডিও নিয়ে মুখ খুললেন সালমান-জেসিয়া

  • প্রকাশিত ০৬:৪০ সন্ধ্যা জানুয়ারী ১৯, ২০১৯
সালমান জেসিয়া
সালমান মুক্তাদির ও জেসিয়া ইসলাম। ছবি: সংগৃহীত

‘‘দয়া করে পুরো ঘটনা না জেনে ফেসবুকে কিছু শেয়ার করবেন না। ’’

কয়েকদিন আগে প্রেমিক সালমান মুক্তাদিরের বাসার ফটকে সাবেক মিস বাংলাদেশ জেসিয়া ইসলামের ভাঙচুর করার একটি ভিডিও ভাইরাল হয় সোশ্যাল মিডিয়ায়। শুরু হয় আলোচনা-সমালোচনার ঝড়। এ বিষয়ে তাৎক্ষণিকভাবে মুখ না খুললেও ইউটিউবার সালমান মুক্তাদির এবং তার প্রেমিকা সাবেক মিস বাংলাদেশ জেসিয়া ইসলাম আলাদা দু'টি ভিডিও পোস্ট করে বিষয়টি ব্যাখ্যা করেন।

শুক্রবার (১৮ জানুয়ারি) ফেসবুক ভিডিও বার্তায় জেসিয়া বলেন, ‘‘আমি সেদিন ওভার রিয়্যাক্ট করেছি, যা ঠিক হয়নি। প্রতিটি সম্পর্কে ভুল বোঝাবুঝি, ঝগড়া হয়ে থাকে। যা হোক, যিনি সেদিন ভিডিওটা রেকর্ড করে ফেসবুকে ছেড়েছেন, তাকে অনুরোধ করব পরবর্তী সময়ে কোনও ভিডিও যেন তিনি না করেন। অন্যের জীবন কিংবা পরিবারের সমস্যা আপনি রেকর্ড করতে পারেন না।’’

জেসিয়া আরও বলেন, ‘‘দয়া করে পুরো ঘটনা না জেনে ফেসবুকে কিছু শেয়ার করবেন না। সেদিন আমার রাগ নিয়ন্ত্রণ করার দরকার ছিল, যেটা আমি করিনি। শুরু থেকে আমি আমার ভালো ভাবমূর্তি ধরে রাখতে পারিনি। ভবিষ্যতে আমি ভালো কিছু করতে চাই, যেটা দেখে সবাই গর্ববোধ করবে।’’

সালমানের সঙ্গে দেড় বছরের প্রেমের সম্পর্কের কথা জানিয়ে জেসিয়া বলেন, ‘‘সেদিন সালমান আমার সঙ্গে একটা মিথ্যা কথা বলেছিল। যেটা আমি মানতে পারিনি। বাধ্য হয়ে তার বাসায় গিয়েছিলাম।’’

পরদিন শনিবার (১৯ জানুয়ারি) ফেসবুকে লাইভে এসে তার প্রেমিক সালমান মুক্তাদিরও কথা বলেন সে রাতের ঘটনা প্রসঙ্গে।

ঘটনায় দুঃখপ্রকাশ করে তিনি বলেন, আমি কোনও ব্যাখ্যা দেব না। তবে আমি প্রতারণা করিনি। তার স্বাক্ষী সবাই।

তিনি আরও বলেন, জেসিয়া ভিডিও বার্তায় ক্ষমা চেয়েছে। আমার মায়ের কাছে ফোন করেও ক্ষমা চেয়েছে।

জেসিয়াকে নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় ক্রমাগত সমালোচনা বন্ধের অনুরোধ জানিয়ে সালমান বলেন, দয়া করে তাকে (জেসিয়া) নিয়ে গালমন্দ এবং ট্রল করা বন্ধ করুন। আমি তাকে অস্বস্তিকর অবস্থার মধ্যে ঠেলে দিতে পারিনা।

প্রসঙ্গত, সোশ্যাল মিডিয়ার কল্যাণে তরুণ অভিনেতা-ইউটিউবার সালমান মুক্তাদিরের প্রেমিকা মডেল জেসিয়া ইসলাম মাঝরাতে তার বাড়ির সামনে যান। বেশ কিছুক্ষণ ধরে জেসিয়ার অনুরোধের পরেও নিরাপত্তারক্ষী দরজা খোলেননি। সেই সময় দরজার ওপাশে সালমান ও তার পরিবারের লোকজন উপস্থিত ছিলেন বলে ধারণা করা হয়। জেসিয়া বন্ধ দরজার বাইরে থেকেই তাদের সঙ্গে কথা বলছিলেন। কথাকাটাকাটির একপর্যায়ে ক্ষিপ্ত হয়ে ইট দিয়ে বাড়ির সামনের অংশে ভাঙচুর করেন জেসিয়া। তখনও কেউ দরজা খোলেননি। এ সময় পাশের একটি বাড়ি থেকে ঘটনার ভিডিও ধারণ করে ফেসবুকে প্রকাশ করা হয়।

২০১৭ সালে ‘মিস ওয়ার্ল্ড বাংলাদেশ’ নির্বাচিত হন জেসিয়া। এখন মডেলিং করে সময় পার করছেন তিনি। এদিকে, বেশ কয়েকবছর ধরে ইউটিউব ভিডিও বানিয়ে আলোচনায় আসেন সালমান মুক্তাদির।