• রবিবার, মে ১৯, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ১০:৪৯ রাত

ক্ষমাপ্রার্থী দীপিকা

  • প্রকাশিত ০৬:৪০ সন্ধ্যা মার্চ ২৬, ২০১৯
দীপিকা পাড়ুকোন
দীপিকা পাড়ুকোন। ছবি: সংগৃহীত

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ইন্সটাগ্রামের পেজে ভক্তদের কাছে ক্ষমা চেয়েছেন দীপিকা।

বলিউডের সর্বোচ্চ মর্যাদাসম্পন্ন অ্যাওয়ার্ড ফিল্মফেয়ার এর বিভিন্ন ক্যাটাগরিতে গত বছরের বিজয়ীদের হাতে পুরষ্কার তুলে দেওয়া হয়েছে সম্প্রতি। জমকালো সেই অনুষ্ঠানে অনেক আশা নিয়ে গিয়েছিলেন দীপিকা পাড়ুকোন আর রণবীর কাপুর জুটি। কিন্তু খুব একটা সন্তুষ্ট হতে পারেননি তারা। কারণ, রণবীর সমালোচকদের পছন্দের 'সেরা অভিনেতার' ট্রফি নিয়ে ঘরে ফিরতে পারলেও খালি হাতেই ফিরতে হয়েছে দীপিকাকে।

'পদ্মাবত' ছবিতে অভিনয়ের জন্য সেরা অভিনেত্রীর তালিকায় তার নাম থাকলেও শেষ পর্যন্ত 'রাজি' ছবিতে অভিনয় করে পুরষ্কারটি নিজের করে নিয়েছেন আলিয়া ভাট।

এবার ফিল্মফেয়ার অ্যাওয়ার্ডে মোট ১৭টি ক্যাটাগরিতে মনোনীত হয়ে ৪টি পুরস্কার জেতে দীপিকা অভিনীত 'পদ্মাবত'। কিন্তু দুর্দান্ত অভিনয় করেও শেষ পর্যন্ত সেরা অভিনেত্রীর পুরস্কারটি জোটেনি দীপিকার ভাগ্যে। আর তাতে দীপিকার ভক্তরাও বেশ চটেছেন! বলিউডের সর্বোচ্চ পুরস্কারের অনুষ্ঠানকে তারা আখ্যা দিয়েছেন 'বিক্রি হয়ে যাওয়া পুরস্কার' হিসেবে।

এদিকে, সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ইন্সটাগ্রামের 'deepika.padukone.fanpage' নামে একটি পেজে ভক্তদের কাছে ক্ষমা চেয়েছেন দীপিকা। তাদেরকে 'আশাহত করার জন্যই' বলিউড অভিনেত্রীর এ ক্ষমাপ্রার্থনা।

এ বছর তাদের প্রত্যাশা পূরণ করতে না পারলেও সামনে ঘুরে দাঁড়ানোর প্রত্যয় ব্যক্ত করে দীপিকা লিখেছেন, "আমার সকল ভক্তদের উদ্দেশে, আপনাদের আশাহত করার জন্য আমি দুঃখিত এবং ভবিষ্যতে আরও ভাল কাজ নিয়ে ফিরে আসব।"

উল্লেখ্য, এ বছর ফিল্মফেয়ার অ্যাওয়ার্ডে সেরা অভিনেত্রীর মনোনয়নের তালিকায় দীপিকা এবং আলিয়ার ছিলেন- নিনা গুপ্তা (বাধাই হো), রাণী মুখার্জি (হিচকি) ও টাবু (আন্ধাধুন)।

দীপিকার পরের ছবি অ্যাসিড সন্ত্রাসের শিকার লক্ষ্মী আগারওয়ালকে নিয়ে নির্মিত ছবি 'ছাপাক'। ছবিটি পরিচালনা করছেন এ বছর ফিল্মফেয়ারে সেরা পরিচালকের খেতাব জেতা মেঘনা গুলজার। সবকিছু ঠিকঠাক থাকলে আগামী বছর ১০ জানুয়ারি মুক্তি পাবে ছবিটি।