• মঙ্গলবার, মার্চ ৩১, ২০২০
  • সর্বশেষ আপডেট : ০১:২৭ দুপুর

করোনাভাইরাসের প্রভাবে পেছালো জেমস বন্ডের ‘নো টাইম টু ডাই’

  • প্রকাশিত ০৯:৫৮ রাত মার্চ ৫, ২০২০
জেমসবন্ড
‘নো টাইম টু ডাই’ সিনেমার একটি পোস্টার। সংগৃহীত

করোনাভাইরাসের বিশ্বব্যাপী প্রাদুর্ভাবের মধ্যে এপ্রিলে ‘নো টাইম টু ডাই’ মুক্তি দেওয়া নিয়ে ইতোমধ্যেই উদ্বেগ তৈরি হয়েছিল

করোনাভাইরাস (কোভিক-১৯) নিয়ে বিশ্বব্যাপী উদ্বেগ সৃষ্টি হওয়ার জেরে জেমস বন্ড সিরিজের নতুন সিনেমা “নো টাইম টু ডাই” মুক্তির সময় সাত মাস পিছিয়ে দেওয়া হয়েছে।

এমজিএম, ইউনিভার্সাল এবং প্রযোজক মাইকেল জি উইলসন ও বারবারা ব্রোকলি বুধবার (৪ মার্চ) টুইটারে ঘোষণা দিয়েছেন যে, সিনেমার মুক্তি ২০২০ সালের এপ্রিলের পরিবর্তে নভেম্বরে পিছিয়ে নেওয়া হবে। আন্তর্জাতিক সিনেমা বাজারের বিষয়টি বিবেচনায় নিয়ে এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে বলে ঘোষণায় উল্লেখ করা হয়।

এখন নতুন সূচি অনুযায়ী “নো টাইম টু ডাই” ১২ নভেম্বর যুক্তরাজ্যে এবং ২৫ নভেম্বর বিশ্বব্যাপী মুক্তি পাবে।

জেমস বন্ড সিরিজের সিনেমাগুলোর মুনাফার উল্লেখযোগ্য অংশ আন্তর্জাতিক বাজার থেকে আসে। সর্বশেষ ২০১৫ সালের সিনেমা “স্পেক্টার” বিদেশের হলগুলো থেকে ৬৭৯ মিলিয়ন ডলার আয় করে এবং চীন থেকেই আসে ৮৪ মিলিয়ন ডলার।


আরও পড়ুন - বাংলায় মুক্তি পাচ্ছে জেমস বন্ডের 'নো টাইম টু ডাই'?


করোনাভাইরাসের বিশ্বব্যাপী প্রাদুর্ভাবের মধ্যে এপ্রিলে “নো টাইম টু ডাই” মুক্তি দেওয়া নিয়ে ইতোমধ্যেই উদ্বেগ তৈরি হয়েছিল। এমনকি চীন, জাপান ও দক্ষিণ কোরিয়ায় সিনেমাটির প্রচারণা চালানোর পরিকল্পনাও বাতিল করা হয়। আর গত সোমবার জেমস বন্ড ফ্যানদের জনপ্রিয় সাইট এম১৬-এইচকিউ প্রযোজকদের উদ্দেশে একটি খোলা চিঠি প্রকাশ করে সিনেমার মুক্তি পিছিয়ে দেওয়ার আহ্বান জানায়।

হলিউডের সিনেমা মুক্তি ও নির্মাণের সময়সূচি ইতোমধ্যে ভাইরাসের প্রাদুর্ভাবে আক্রান্ত হয়েছে। গত সপ্তাহে প্যারামাউন্ট পিকচার্স মিশন ইমপসিবল সিরিজের সপ্তম সিনেমার নির্মাণ আটকে দেয়। এর চিত্রায়ণের কথা ছিল ইতালির ভেনিসে। সেই সাথে প্রতিষ্ঠানটি চীনে “সনিক দ্য হেজহগ” মুক্তি দেওয়া স্থগিত করেছে।