Monday, May 27, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

ফেসবুকে জেমসকে অশালীন ভাষায় নোবেলের আক্রমণ

নোবেল লেখেন, 'ওই জেমস! গান গাবা এক স্টেজে? তোমারে ১০০০ মিউজিশিয়ান দেবো। আর আমি একা একটা মাইক্রোফোন!'

আপডেট : ১৪ মে ২০২১, ০৪:৩৪ পিএম

বাংলাদেশের একটি প্রজন্ম বড় হয়েছে রকতারকা জেমসের গান শুনে। এই প্রজন্মটির রক্তের সঙ্গে মিশে আছে “গুরু” খ্যাত জেমসের তুমুল জনপ্রিয় সব গানগুলো। জেমস ভক্তদের কাছে যেমন পূজনীয়, তেমনি মিডিয়া পাড়াতে ও সঙ্গীতাঙ্গনে ভালোবাসা ও শ্রদ্ধার। 

তবে হালে খ্যাতি পাওয়া সারেগামাপা-ফেরত নোবেল ব্যতিক্রম। নিজের ভ্যারিফায়েড ফেসবুক অ্যাকাউন্ট থেকে একের পর এক নগরবাউল জেমসকে নিয়ে আপত্তিকর ও অশালীন স্ট্যাটাস দিয়েছেন তিনি।  

বিভিন্ন সময়ে নানা আপত্তিকর মন্তব্য করে বিতর্কে জড়ানো নোবেলের নতুন এই “স্ট্যান্টবাজিতে” যেমন ক্ষেপেছেন ভক্তরা, তেমনই নেতিবাচক গুঞ্জন উঠেছে সঙ্গীতাঙ্গনে।  


গত ৯ ঘণ্টায় নোবেল তার ফেসবুক পেজে ১৪টি স্ট্যাস্টাস দিয়েছেন নগরবাউল জেমসকে উদ্দেশ করে। একের পর এক পোস্টে নোবেল লেখেন-

“জেমস কে ওপেন CHALLENGE! একই গান জেমস গাবে, আমিও গাবো!!”

“ওই জেমস! গান গাবা এক স্টেজে? তোমারে ১০০০ মিউজিশিয়ান দেবো। আর আমি একা একটা মাইক্রোফোন!”

“বেটা বয়স হইসে। এবার বাদ দে গান বাজনা। বহুত করসোস।”

“সারা জীবন মার্জুকের, প্রিন্সের, রেন্ডিয়ার প্রিতমের গান গায়া হিট হইছো! নিজে কি ছিড়ছো?”


“জেমস ‘অভিনয়’কভার করুক। তারপর বুঝবো কার গলায় কত জোর। আমি জেমসের গান ঘুমায় ঘুমায় গেয়ে দেবো। লুল।”

“লেগেন্ড রে!! ওরে লেগেন্ড!! গলা দিয়ে আওয়াজ বেরোয়না! আবার লেগেন্ড মারায়! বুইড়া!”

“ওই জেমস! ঈদের গান কই? নাকি ভয়েস গেছেগা?”

“কর বেটা! মামলা কর! একটু জেল খাটি!”


তবে শুধু এসব স্ট্যাটাসই নয়। এর আগেও জেমস ও দেশীয় মিউজিশিয়ানদের নিয়ে বাজে মন্তব্য করে ব্যাপক সমালোচনার মুখে পড়েন নোবেল। সম্প্রতি নিজের ঘটানো সড়ক দুর্ঘটনা নিয়ে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে মিথ্যাচার করেন তিনি। 

এদিকে নোবেলের এসব পোস্টের নিচে এসে কমেন্টে ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন নোবেলের ফলোয়াররাই। জেমসকে নিয়ে আপত্তিকর পোস্টগুলো মেনে নিতে পারেননি তারাও। অনেকে আবার নোবেলের পেজ হ্যাক হয়েছে বলে শঙ্কা প্রকাশ করেছেন। 


About

Popular Links