Thursday, May 30, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

সালমানকে সমর্থন করায় রাখী সাওয়ান্তকে হত্যার হুমকি

ভারতীয় শীর্ষ সন্ত্রাসী লরেন্স বিষ্ণোইয়ের পক্ষ থেকে প্রাণনাশের হুমকি দিয়ে পাঠানো ইমেইলে রাখিকে সালমান থেকে দূরে থাকতেও বলা হয়েছে

আপডেট : ২০ এপ্রিল ২০২৩, ১১:৩০ পিএম

সালমান খান বরাবরই রাখি সাওয়ান্তের যেকোনো বিপদে পাশে এসে দাঁড়ান। বলিউডের ড্রামা কুইন খ্যাত রাখিও বরাবরই সালমান খানের গুণমুগ্ধ। কিন্তু কিংবদন্তি বলিউড অভিনেতার কাছের মানুষ হওয়াটাই সম্ভবত কাল হতে যাচ্ছে এ অভিনেত্রীর। সালমানের পর এবার রাখিও যে ভারতীয় শীর্ষ সন্ত্রাসী লরেন্স বিষ্ণোইয়ের লক্ষ্যবস্তুতে পরিণত হলেন।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম ইন্ডিয়া টুডের এক প্রতিবেদনে বলা হয়, বলিউড সুপারস্টার সালমান খানকে একাধিকবার হত্যার হুমকি দেওয়ার পর এবার লরেন্স বিষ্ণোইয়ের পরবর্তী নিশানা রাখি সাওয়ান্তের দিকে। এ অভিনেত্রী জানান, ইমেইলের মাধ্যমে তাকে হত্যার হুমকি দেওয়া হয়েছে। শুধু তাই না, ইমেইলে রাখিকে সালমানের থেকে দূরে থাকার সতর্কবার্তাও দেওয়া হয়েছে।

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ইনস্টাগ্রামে আপলোড করা এক ভিডিওতে ইমেইলের মাধ্যমে লরেন্স বিষ্ণোইয়ের কাছ থেকে প্রাণনাশের হুমকি পাওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন রাখি সাওয়ান্ত। গণমাধ্যমের সঙ্গে কথা বলার সময়ে সেই ভিডিওতে লরেন্স বিষ্ণোইয়ের কাছ থেকে আসা হত্যার হুমকিসহ আসা ই-মেইলটি রাখি পড়ে শোনান।

ইমেইলে বলা হয়, “পরেরবার আমরা কড়া নিরাপত্তার মাঝেই তাকে (সালমান) হত্যা করব। পাশাপাশি রাখিকে উদ্দেশ করে বলা হয়, “তোমার জন্য শেষ সুযোগ। না হলে তুমিও তৈরি থেকো।” গণমাধ্যমকে নিজের ফোন দেখিয়ে রাখি বলেন, “এটা (ইমেইল) লরেন্স বিষ্ণোই গ্যাংয়ের কাছ থেকে এসেছে। তবে আমি থানায় কোনো অভিযোগ করব না।”


পরে ই-টাইমসকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে হত্যার হুমকি দেওয়া ইমেইলের প্রসঙ্গে রাখি বলেন, “তারা (লরেন্স বিষ্ণোইয়ের গ্যাং) বলেছে যে আমি যদি সালমান খানের বিষয়ে কথা বলি তো তারা আমায় মেরে ফেলবে। কিন্তু সালমান খানকে নিয়ে আমি কথা বলব। কারণ আমার মা অসুস্থ থাকাকালে তিনি আমার মাকে সাহায্য করেছিলেন। ক্যানসার থেকে আমার মাকে বাঁচানোর জন্য তিনি ৫০ লাখ টাকা ব্যয় করেছিলেন।”

এ অভিনেত্রী আরও বলেন, “আমি কেন তার (সালমান) ব্যাপারে কথা বলব না? তারা (লরেন্স বিষ্ণোইয়ের গ্যাং) সিধু মুসেওয়ালাকে প্রাণে হত্যা করেছে। মানুষ যখন জীবিত থাকেন, তখন তার পাশে দাঁড়ানো কি আমাদের উচিত না?”

About

Popular Links