Sunday, May 26, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

নোবেল: ভুল-বোঝাবুঝি হয়েছিল, কথা দিলাম প্রোগ্রাম করে দিয়ে আসব

আদালত পাঁচ হাজার টাকা মুচলেকায় নোবেলের জামিনের আদেশ দেন

আপডেট : ২২ মে ২০২৩, ১০:২৭ পিএম

প্রতারণার অভিযোগে রাজধানীর মতিঝিল থানার এক মামলায় গ্রেপ্তারের তিন দিন পর মুচলেকা দিয়ে জামিন পেয়েছেন কণ্ঠশিল্পী মাইনুল আহসান নোবেল। এ বিষয়ে নোবেল বলেন, “উত্তরবঙ্গের প্রোগ্রাম নিয়ে একটি ভুল-বোঝাবুঝি হয়েছিল। আমি কথা দিলাম উত্তরবঙ্গে গিয়ে পরবর্তীতে প্রোগ্রাম আমি আবার করে দিয়ে আসব।” 

সোমবার (২২ মে) ঢাকার মহানগর হাকিম শফি উদ্দিনের আদালত আপসের শর্তে গায়ক মাইনুল আহসান নোবেলের জামিন মঞ্জুর করেন।

এ দিন মামলার তদন্ত কর্মকর্তা গোয়েন্দা পুলিশের (ডিবি) পরিদর্শক হুমায়ুন কবির এক দিনের রিমান্ড শেষে নোবেলকে আদালতে হাজির করে কারাগারে আটক রাখার আবেদন করেন।

নোবেলের পক্ষে অ্যাডভোকেট আব্দুল্লাহ আল মামুন জামিন আবেদন করেন। রাষ্ট্রপক্ষ থেকে এর বিরোধিতা করা হয়। নোবেলের আইনজীবী আদালতে বলেন, “আসামি বাদীর সঙ্গে আপস করে সকল টাকা বুঝিয়ে দিয়েছেন। বাদী সকল টাকা বুঝে পেয়েছেন।”

উভয়পক্ষের শুনানি শেষে আদালত পাঁচ হাজার টাকা মুচলেকায় নোবেলের জামিনের আদেশ দেন। পুলিশ অভিযোগপত্র জমা দেওয়া পর্যন্ত এ জামিন আদেশ বহাল থাকবে।

হাজত থেকে বের হয়ে এসে নোবেল বলেন, “উত্তরবঙ্গের প্রোগ্রাম নিয়ে একটি ভুল-বোঝাবুঝি হয়েছিল। আমি কথা দিলাম উত্তরবঙ্গে গিয়ে পরবর্তীতে প্রোগ্রাম আমি আবার করে দিয়ে আসব। আপনারা আবার নিউজ করবেন। যা হয়েছে তার জন্য আমি ক্ষমা প্রার্থনা করছি।”

শরীয়তপুরের ভেদরগঞ্জ হেডকোয়ার্টার পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ের “এসএসসি ব্যাচ ২০১৬”-এর প্রতিনিধি মো. সাফায়েত ইসলাম বাদী হয়ে রাজধানীর মতিঝিল থানায় ১৬ মে নোবেলের নামে মামলাটি করেন। এ মামলায় গত ২০ মে নোবেলের এক দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছিলেন আদালত।

মামলার অভিযোগে বলা হয়, ২৮ এপ্রিল শরীয়তপুরের ভেদরগঞ্জ হেডকোয়ার্টার পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ের “এসএসসি ব্যাচ ২০১৬”-এর প্রথম পুনর্মিলনী আয়োজন করা হয়। সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে গান গাওয়ার জন্য নোবেলের সঙ্গে মোট এক লাখ ৭৫ হাজার টাকা চুক্তি করা হয়। পরে নোবেলকে বিভিন্ন সময়ে ব্যাংক অ্যাকাউন্টসহ সর্বমোট এক লাখ ৭২ হাজার টাকা দেওয়া হয়। অনুষ্ঠানে না গিয়ে প্রতারণা করে এ অর্থ আত্মসাৎ করেন নোবেল।

About

Popular Links