Thursday, May 30, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

‘শনিবার বিকেল’ নিয়ে তথ্যমন্ত্রী: প্রকৃত ঘটনা না থাকলে সেন্সর বোর্ড প্রশ্ন তুলবেই

মন্ত্রী বলেন, প্রকৃত কোনো ঘটনাকে কেন্দ্র করে যদি চলচ্চিত্র নির্মাণ করা হয়, সেখানে প্রকৃত ঘটনা থাকতে হবে। যদি প্রকৃত ঘটনা চলচ্চিত্রে না থাকে সেক্ষেত্রে সেন্সর বোর্ড তা আটকে দেবেই

আপডেট : ০৯ সেপ্টেম্বর ২০২২, ১২:৩৮ পিএম

তথ্য ও সম্প্রচারমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ বলেছেন, “পৃথিবীর সব দেশেই সেন্সর বোর্ড আছে, বাংলাদেশেও এই বোর্ড থাকবে। দেশীয় কৃষ্টি-সংস্কৃতিকে বিকৃত করে বা প্রকৃত ঘটনা আড়াল করে কেউ চলচ্চিত্র নির্মাণ করলো কিনা তা দেখাই সেন্সর বোর্ডের প্রধান কাজ। যদি কেউ তা করে থাকে, সেন্সর বোর্ড সেটি আটকে দিতে পারে।”

বৃহস্পতিবার (৮ সেপ্টেম্বর) দুপুরে সচিবালয়ে গুলশান হলি আর্টিজান বেকারিতে হামলার ঘটনাকে কেন্দ্র করে মোস্তফা সরয়ার ফারুকীর চলচ্চিত্র “শনিবার বিকেল” সেন্সর না পাওয়ার বিষয়ে এক প্রশ্নের জবাবে তিনি এসব কথা বলেন।

মন্ত্রী বলেন, “প্রকৃত কোনো ঘটনাকে কেন্দ্র করে যদি চলচ্চিত্র নির্মাণ করা হয়, সেখানে প্রকৃত ঘটনা থাকতে হবে। যদি প্রকৃত ঘটনা চলচ্চিত্রে না থাকে সেক্ষেত্রে সেন্সর বোর্ড তা আটকে দেবেই।”

মন্ত্রী বলেন, “সরকারের অনুদান নিয়ে যারা চলচ্চিত্র নির্মাণ করে তাদের প্রত্যেককেই এই অনুদানের অর্থ ব্যবহার করে তা নির্মাণ করতে হবে এবং তারা করছেও। তবে কেউ কেউ কাজটি না করতে পেরে টাকা ফেরত দিচ্ছে। তবে মোট কথা সিনেমা কিন্তু তৈরি হচ্ছে। অনুদানের টাকা আত্মসাৎ করে সিনেমা না বানানো এখন আর ঘটে না। যদি এরকম কেউ করে, তাকে পর পর তিনটি নোটিশ দেওয়া হয়। যদি তাতেও কাজ না হয়, তার বিরুদ্ধে মামলা করা হয় এবং মামলা করাও হয়েছে।”

তথ্যমন্ত্রী বলেন, “ভারতের সব অঞ্চলের সিনেমাই নির্মাণের পর মুক্তির ছাড়পত্র পেতে হলে সেগুলো দিল্লিতে অবস্থিত সেন্সর বোর্ডে পাঠাতে হয়।”

About

Popular Links