Thursday, May 23, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

স্ত্রীর মৃত্যুর পরদিন মারা গেলেন পরিচালক সোহানুর রহমান সোহান

প্রয়াত নায়ক সালমান শাহ ও চিত্রনায়ক শাকিব খানের সিনেমায় আত্মপ্রকাশ ঘটেছিল সোহানের সিনেমায়

আপডেট : ১৪ সেপ্টেম্বর ২০২৩, ০১:৪০ পিএম

দেশের প্রখ্যাত চলচ্চিত্র পরিচালক সোহানুর রহমান সোহান মারা গেছেন। বুধবার (১৩ সেপ্টেম্বর) সন্ধ্যা ৭টার দিকে উত্তরার ক্রিসেন্ট হাসপাতালে নেওয়া হলে চিকিৎসকেরা তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

নির্মাতা অপূর্ব রানা জানান, বুধবার দুপুরে তিনি ঘুমানোর পর সন্ধ্যা নাগাদ সাড়া মিলছিলো না। এরপর পরিবারের সদস্যরা নিয়ে যান ক্রিসেন্ট হাসপাতালে। সন্ধ্যা ৭টার দিকে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

হাসপাতালের জরুরি মেডিকেল কর্মকর্তা তানভীর ইসলাম জানান, সন্ধ্যা ৬টা ৪০ মিনিটে সোহানকে হাসপাতালে আনা হয়েছে। মৃত অবস্থায় পেয়েছেন তারা। মৃত্যুর কারণ এখনও জানা যায়নি।

এর আগে, মঙ্গলবার রাতে ব্রেইন স্ট্রোকে মৃত্যুবরণ করেন তার স্ত্রী। তার ২৪ ঘণ্টা পার না হতেই পরপারে পাড়ি জমালেন অসংখ্য সফল ছবির এই নির্মাতা।

১৯৭৭ সালে  নির্মাতা শিবলী সাদিকের সহকারী পরিচালক হিসেবে ক্যারিয়ার শুরু করেন সোহানুর রহমান সোহান।

এরপর তিনি শহীদুল হক খানের “কলমিলতা” (১৯৮১), এজে মিন্টুর “অশান্তি” (১৯৮৬) ও শিবলী সাদিকের “ভেজা চোখ” (১৯৮৮) সিনেমাগুলোতে সহকারী হিসেবে কাজ করেছেন।

১৯৮৮ সালে “বিশ্বাস অবিশ্বাস” সিনেমার মাধ্যমে সরাসরি নির্মাতা হিসেবে সোহানুর রহমান সোহান আত্মপ্রকাশ করেন।

১৯৯৩ সালে তার “কেয়ামত থেকে কেয়ামত” সিনেমা ব্যাপক সাফল্য পায়। ওই সিনেমার মাধ্যমে সিনেমায় আত্মপ্রকাশ করেন এবং তারকা খ্যাতি পান প্রয়াত নায়ক সালমান শাহ, নায়িকা মৌসুমী ও কণ্ঠশিল্পী আগুন।

এমনকি ঢালিউডের শীর্ষ তারকা চিত্রনায়ক শাকিব খানের আত্মপ্রকাশ হয়েছিল সোহানের “অনন্ত ভালোবাসা” সিনেমার মাধ্যমে।

সোহানুর রহমান সোহান পরিচালিত অন্যান্য সিনেমাগুলো হচ্ছে- “আমার দেশ আমার প্রেম”, “স্বজন”, “আমার ঘর আমার বেহেশত”, “অনন্ত ভালোবাসা”, “স্বামী ছিনতাই”, “আমার জান আমার প্রাণ”, “পরাণ যায় জ্বলিয়া রে”, “কোটি টাকার প্রেম”, “সে আমার মন কেড়েছে” “দ্য স্পিড” ও “লোভে পাপ পাপে মৃত্যু” ইত্যাদি।

About

Popular Links