Sunday, May 19, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

কেন বিদেশে স্থায়ী হওয়াই শোবিজ তারকাদের নিয়তি, ব্যাখ্যা দিলেন মিশা

মিশা বলেন, দেশের চলচ্চিত্র এখন সংকটময় সময় পার করছে। তবে বিক্ষিপ্তভাবে কিছু ভালো চলচ্চিত্র বের হয়ে আসছে। হাতে গুনলে ১০ জন বাণিজ্যিক ছবির অভিনয়শিল্পীর নাম বলা দুষ্কর। যাদের নামে সিনেমা চলে

আপডেট : ২২ নভেম্বর ২০২৩, ০৫:১৭ পিএম

দেশের শোবিজ তারকাদের নিয়তি হয়ে দাঁড়িয়েছে বিদেশে আবাস গাড়া। এটি বাধ্য হয়েই তারা করেন বলে মনে করেন ঢাকাই সিনেমার অভিনেতা শিশা সওদাগর।

তার মতে, “একটা সময় কাজ কমে যায়। যেহেতু অভিনয় পেশা হিসেবে স্বীকৃতি নেই, তাই শিল্পীরা অফিসিয়ালি পেনশন, ভাতা বা সুযোগ-সুবিধা পান না। শেষ জীবনটা আরাম আয়েসে কাটানোর জন্য তারা অন্যদেশে চলে যান।”

সানী সানোয়ারের নতুন সিনেমা “এশা মার্ডার”র ঘোষণা অনুষ্ঠানে এসব কথা বলেন তিনি।

মিশা দাবি করেন, “অভিনয় পেশাটিকে পেশা হিসেবে স্বীকৃতি দেওয়া উচিত। না হলে যারা এটার সাথে জড়িত তাদের অনেক সমস্যায় পড়তে হয়। এগুলো নেই বলেই অনেক ভালো শিল্পী উন্নত ভবিষ্যতের আশায় এই পেশা ছেড়ে প্রবাসে স্থায়ী হচ্ছেন।”

তিনি বলেন, “শিল্পীদের কাজ না করলে কোনো বেতন দেওয়া হয় না। আমরা ব্যাংকের লোন নিতে গেলে পেশা কী জিজ্ঞেস করলে বলতে হয় অ্যাক্টর। ব্যাংক থেকে বলা হয়, এই পেশায় লোন দেওয়ার জন্য কোনো ক্রাইটেরিয়া নেই। এছাড়া আরও অনেক ক্ষেত্রেই শিল্পীদের পেশাটি যথাযথভাবে স্বীকৃত নয়।”

তিন দশকের ক্যারিয়ারে অসংখ্য ব্যবসা সফল সিনেমা উপহার দিয়েছেন এই অভিনেতা। তবে এখন বেশ হতাশার কথা শোনালেন এই খল অভিনেতা।

তিনি বলেন, “দেশের গোটা চলচ্চিত্র এখন সংকটময় সময় পার করছে। এর মধ্যে বিক্ষিপ্তভাবে কিছু ভালো চলচ্চিত্র বের হয়ে আসছে। হাতে গুনলে ১০ জন বাণিজ্যিক ছবির অভিনয়শিল্পীর নাম বলা দুষ্কর। যাদের নামে সিনেমা চলে। শিল্পী, নির্মাতা, মিউজিক ডিরেক্টরসহ যাই বলি না কেন অপরিহার্য ১০ জনের নাম বলা কঠিন। এককথায় চলচ্চিত্রে আমাদের সংকট এখন সর্বময়।”

মিশা সওদাগর বলেন, “এখন নতুন ছেলে-মেয়েদের অভিনয়টাকে পেশা হিসেবে নিতে বলাটা অনেক কঠিন। কারণ, এই মুহূর্তে শাকিব খান, মিশা সওদাগর কিংবা চঞ্চল চৌধুরী, মোশারফ করিম, অপূর্ব, নিশো কজনই হতে পারবে?”

অভিনয়কে পেশা হিসেবে বেছে নেওয়ার পর শিল্পীকে মৌলিক চাহিদা পূরণ করে, সন্তানদের লালন-পালনে এবং গাড়ি-বাড়ি করতে বেশ পরিশ্রম করতে হয় বলে জানান তিনি।

বর্তমানে নির্মাতা বদিউল আলম খোকনের “আগুন”, শাহীন সুমনের “কুস্তিগির” সিনেমার শুটিং শেষ করেছেন মিশা। এছাড়া দেবাশীস বিশ্বাসের “তুমি যেখানে আমি সেখানে”, মোহাম্মাদ ইকবালের “রিভেঞ্জ: ডেড বডি”, রায়হান খানের “পায়েল”, রোমানের “লিপস্টিক”, মোস্তাফিজুর রহমান মানিকের “ডার্ক ওয়ার” শুটিং শুরু করেছেন।

About

Popular Links