Sunday, May 26, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

ঘাম থেকে চুলের সমস্যার এক নিমিষেই সমাধান

প্যাঁচপেচে গরম হোক বা বর্ষার স্যাঁতসেতে আবওহাওয়া, চুলের গোড়ায় ঘাম জমলে চুলের সৌন্দর্যও ম্লান হয়ে যেতে পারে

আপডেট : ১৫ আগস্ট ২০২০, ০১:৪০ পিএম

ঘাম আর অতিরিক্ত আর্দ্রতা থেকে বাঁচতে চুলের প্রয়োজন আদর। প্যাঁচপেচে গরম হোক বা বর্ষার স্যাঁতসেতে আবওহাওয়া, চুলের গোড়ায় ঘাম জমলে চুলের সৌন্দর্যও ম্লান হয়ে যেতে পারে। চুল তরতাজা রাখতে ট্রাই করুন এই ঘরোয়া মাস্কগুলো।

ঘরোয়া এইসব প্যাক রাতারাতি ফল না দিলেও, কেমিক্যালযুক্ত সামগ্রীর চেয়ে অনেক ভালো। এছাড়া ঘাম থেকে চুলকে বাঁচাতে ও মাথা ঠাণ্ডা রাখতে এই হেয়ার প্যাকগুলো ব্যবহার করতে পারেন।

১. ঘামের চটচটেভাব থেকে চুল বাঁচিয়ে ফুরফুরে করে তোলার সবচেয়ে ভাল উপায় হল টকদই ও আমন্ড অয়েলের মিশ্রণ। টকদই খুশকি কমাবে, চুলকে নরমও করবে। 

আধকাপ টকদই, ২ টেবলচামচ আমন্ড অয়েল ও এক টেবলচামচ মধু মিশিয়ে চুলে লাগান। ১-২ ঘণ্টা রেখে শ্যাম্পু করে নিন।

২. চুলে ভলিউম আনতে একটা আস্ত পাতিলেবুর রস, ২টো ডিমের কুসুম, একটা ডিমের সাদা ও ১ টেবিল চামচ মধু মিশিয়ে চুলে লাগান। ১০-২০ মিনিট রেখে ধুয়ে ফেলুন।

৩. ১/৪ কাপ মধু নিয়ে হালকা গরম করে, এতে ১/৪ কাপ অলিভ অয়েল মিশিয়ে নিন। মিশ্রণ একটু ঠাণ্ডা হলে, আঙুলের সাহায্যে পুরো চুল ও গোড়ায় লাগান। এবার গরম পানিতে তোয়ালে ডুবিয়ে মাথায় জড়িয়ে রাখুন। আধঘণ্টা রেখে মাইল্ড শ্যাম্পু দিয়ে চুল ধুয়ে নিন। অলিভ অয়েলের পরিবর্তে নারকেল তেলও ব্যবহার করতে পারেন।

৪. ঘামের কারণে হওয়া চুলের বিভিন্ন সমস্যাগুলোর মধ্যে নির্জীব ও জেল্লাহীন চুল অন্যতম প্রধান। এই হেয়ার প্যাকটি চুলকে চকচকে করতে এবং চুলে প্রাণ ফিরিয়ে আনতে অব্যর্থ। রুক্ষতাও থাকবে না, আর চুলও হয়ে উঠবে নরম, কোমল ও চকচকে। চুল পড়া কমাতেও অনেকটাই সাহায্য করবে এই প্যাক।

এককাপ নারকেল তেল, আধকাপ লেবুর রস, ৩ টেবলচামচ শুকনো জবাফুলের গুঁড়ো ও ২৫০ মিলি বিয়ার একসঙ্গে মিশিয়ে নিন। পুরো চুল ও স্ক্যাল্পে ভালভাবে এই প্যাক লাগিয়ে ২৫-৩০ মিনিট রেখে দিন। এরপর মাইল্ড শ্যাম্পু দিয়ে চুল ধুয়ে ফেলুন। 

About

Popular Links