• মঙ্গলবার, অক্টোবর ২২, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ০৮:২০ রাত

ছেলে হবে না মেয়ে, জলহস্তীকে তরমুজ খাইয়ে জানলেন দম্পতি! (ভিডিও)

  • প্রকাশিত ০৮:১০ রাত সেপ্টেম্বর ২৫, ২০১৯
জলহস্তী
জলহস্তীকে জেলি ভর্তি তরমুজ খাওয়ান এই দম্পতি। ছবি: ভিডিও থেকে

মার্কিন দম্পতি জোনাথন জোসেফ ও ব্রিজেট জোসেফের বিশ্বাস, জেলি ভরা তরমুজ খেয়ে যদি জলহস্তীর মুখ দিয়ে নীল রঙের জেলি বেরিয়ে আসে, তাহলে সন্তান ছেলে হবে!

জন্মের আগে ভ্রুণের লিঙ্গ নির্ধারণ বিভিন্ন দেশেই আইনত নিষিদ্ধ। তবে, জন্মের আগে ভ্রুণের লিঙ্গ কী তা জানার উৎসাহ কম নেই কোনও দেশেই। এজন্য বিভিন্ন কুসংস্কারেরও শরণাপন্ন হন অনেকে। যেমন সম্প্রতি হয়েছিলেন টেক্সাসের এক দম্পতি। সেই ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হতেই নেটিজেনদের সমালোচনার মুখে তারা। খবর আনন্দবাজারের।

যুক্তরাষ্ট্রের টেক্সাসে থাকেন জোনাথন জোসেফ ও ব্রিজেট জোসেফ। ব্রিজেট সন্তানসম্ভবা। ব্রিজেট পুত্র না কন্যা সন্তানের জন্ম দেবেন, তা ‘জানতে’ চিড়িয়াখানার একটি জলহস্তীর শরণাপন্ন হয়েছিলেন তারা। সন্তানের লিঙ্গ জানার জন্য তারা জলহস্তীকে খাওয়ালেন জেলি ভর্তি তরমুজ। 

তাদের বিশ্বাস, জেলি ভরা তরমুজ খেয়ে যদি জলহস্তীর মুখ দিয়ে নীল রঙের জেলি বেরিয়ে আসে, তাহলে সন্তান ছেলে হবে! জোনাথন ও ব্রিজেট জলহস্তীকে তরমুজ ছোড়ার পর তার মুখ দিয়ে বেরিয়ে এসেছিল নীল জেলি। আর তা দেখেই আনন্দে একে অপরকে জড়িয়ে ধরেন ওই দম্পতি। 

এই ঘটনার ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়তেই ভাইরাল হয়েছে। ওই দম্পতির লিঙ্গ নির্ধারণের মানসিকতা দেখে বেজায় ক্ষেপেছেন নেটিজেনরা। পাশাপাশি জলহস্তীকে কৃত্রিম জেলি খাওয়ানোর জন্য সমালোচিতও হয়েছেন ওই দম্পতি।