• রবিবার, জুলাই ২১, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ০২:১৮ রাত

কাশ্মীরের বিতর্কিত অঞ্চলে ভারত-পাকিস্তানের গোলাগুলিতে নিহত ৭

  • প্রকাশিত ০৩:৫৮ বিকেল এপ্রিল ২, ২০১৯
কাশ্মীর
ভারত শাসিত কাশ্মীরে ভারতীয় বাহিনী। ছবি- রয়টার্স

চলতি বছরের ফেব্রুয়ারিতে ভারত নিয়ন্ত্রিত কাশ্মীরে আত্মঘাতী বোমা হামলায় ৪০ জন ভারতীয় সেনা নিহতের পরিপ্রেক্ষিতে পারমাণবিক ক্ষমতাধর দেশ দুটির উত্তেজনার পর এবারই প্রথম এত বেশি সংখ্যক হতাহতের ঘটনা ঘটল।

কাশ্মীরের বিতর্কিত অঞ্চলে ভারত-পাকিস্তানের গোলাগুলিতে পাকিস্তানের তিন সেনাসহ দু’দেশের সাতজন নিহত হয়েছে বলে মঙ্গলবার কর্মকর্তারা জানিয়েছেন।

বার্তা সংস্থা ইউএনবি'র এক প্রতিবেদনে বলা হয়, সোমবার সন্ধ্যার এ ঘটনায় নিহত অন্যদের মধ্যে রয়েছেন- এক পাকিস্তানি নারী, একজন করে ভারতীয় নারী, কিশোরী ও আধাসামরিক বাহিনীর সদস্য।

চলতি বছরের ফেব্রুয়ারিতে ভারত নিয়ন্ত্রিত কাশ্মীরে আত্মঘাতী বোমা হামলায় ৪০ জন ভারতীয় সেনা নিহতের পরিপ্রেক্ষিতে পারমাণবিক ক্ষমতাধর দেশ দুটির উত্তেজনার পর এবারই প্রথম এত বেশি সংখ্যক হতাহতের ঘটনা ঘটল।

পকিস্তান সেনাবাহিনীর পক্ষ থকে বলা হচ্ছে, ভারতীয় সেনারা সারারাত ধরে পাকিস্তান নিয়ন্ত্রিত কাশ্মীরের কাছাকাছি শহর এলাকায় আমাদের ওপর টার্গেট করে রাখে।

পাকিস্তানও যথাযথভাবে জবাব দিয়েছে উল্লেখ করে তারা আরও বলছে, তাদের তিনজন সেনা নিহত এবং একজন আহত হয়েছে।

কাশ্মীরে নিয়োজিত পাকিস্তানি পুলিশ কর্মকর্তা ওয়াহিদ কোরাইশি জানান, ভারতীয়দের গুলিতে দূর্গম অঞ্চল নিয়াজাপাড় এলাকায় ৭০ বছরের এক বৃদ্ধা নিহত হন।

অপরদিকে ভারতীয় সেনাবাহিনীর পক্ষ থেকে বলা হচ্ছে, পকিস্তানি সেনারা সীমান্ত এলাকায় মর্টার সেলের পাশাপাশি ছোট ছোট আগ্নেয়াস্ত্র দিয়ে গুলি চালালে ভারতীয় সেনারাও তার প্রতিশোধ নেয়।

ভারতীয় পুলিশ কর্মকর্তা এমকে সিনহা জানান, তাদের আধা সামরিক বাহিনীর এক সদস্যসহ একজন করে নারী ও কিশোরী নিহত হয়। পাশাপাশি অন্তত ১৮জন বেসামরিক এবং পাঁচজন সামরিক সদস্য আহত হয়।