• সোমবার, জানুয়ারী ২০, ২০২০
  • সর্বশেষ আপডেট : ১২:৪৫ রাত

নিজের মেয়ের ছদ্মবেশে জেল পালানোর চেষ্টা!

  • প্রকাশিত ০৪:৫৩ বিকেল আগস্ট ৬, ২০১৯
ব্রাজিল কারাগার
ছবি: সংগৃহীত

অন্য এক নারীকে সঙ্গে নিয়ে কারাগারে থাকা বাবার সঙ্গে দেখা করতে এসেছিল তার মেয়ে

মাদক ব্যবসায় জড়িত থাকার দায়ে ৭৩ বছর কারাভোগের সাজা হয়েছিল ব্রাজিলিয়ান মাদক কারবারি ক্লদিনো ডা সিলভার। তাকে রাখা হয়েছিল রিও ডি জেনেরিওর সবচেয়ে কুখ্যাত কারাগারে। কিন্তু তিনি সেখান থেকে পালানোর চেষ্টা করেছিলেন নিজের ১৯ বছর বয়সী মেয়ের মতো বেশ নিয়ে! একাজে তিনি ব্যবহার করেন সহজলভ্য সিলিকন মাস্ক আর নকল চুল।

ডা সিলভার ইচ্ছে হয়েছিল জেল পালানোর ‘রোমাঞ্চকর’ অভিজ্ঞতা নেওয়ার। কিন্তু শেষপর্যন্ত তিনি সফল হতে পারেননি। উল্টো তিনি পরিণত হয়েছেন হাসির পাত্রে। বেশ ধারণ করে পালানোর সময় মেয়েকেই তিনি রেখে এসেছিলেন জেলের ভেতরে।

ঘটনা গত সপ্তাহের। অন্য এক নারীকে সঙ্গে নিয়ে কারাগারে থাকা বাবার সঙ্গে দেখা করতে এসেছিল ডা সিলভার মেয়ে। তারা নিয়ে এসেছিল সিলিকন মাস্ক, নকল চুল আর টি-শার্ট। সেগুলো ব্যবহার করে পৌঁছে গিয়েছিল ক্লিয়ারেন্স দপ্তর পর্যন্ত। মেয়েদের মতো করে চিকন গলায় কথাও বলছিল সে। কিন্তু শেষরক্ষা হয়নি। 

আচরণে অস্বাভাবিকতার জন্য ধরা পড়ে যায় সে। কারারক্ষীদের সন্দেহ হলে তল্লাশির পর ধরা পড়ে ছদ্মবেশের বিষয়টি।

ডা সিলভার একর্মকাণ্ডকে ‘হতাশার ফলাফল’ হিসেবে আখ্যায়িত করেছে ব্রাজিলের কারা প্রশাসন। তবে এর আগে ২০১৩ সালেও একবার জেল পালানোর চেষ্টা করেছিল কুখ্যাত এই অপরাধী।