• শনিবার, জানুয়ারী ১৮, ২০২০
  • সর্বশেষ আপডেট : ১১:৩৮ সকাল

ইরান: ইউক্রেনের বিমান ‘অনিচ্ছাকৃতভাবে’ ভূপাতিত করা হয়েছে

  • প্রকাশিত ১২:০০ দুপুর জানুয়ারী ১১, ২০২০
ইরান-ইউক্রেন-বিমান বিধ্বস্ত
এএফপি

দেশটির সেনাবাহিনীর বিবৃতিতে আরও দাবি করা হয়, ‘সেটি ছিলো মানুষের দ্বারা সংগঠিত একটি ভুল। এতে জড়িত সদস্যদের অবশ্যই শাস্তির আওতায় আনা হবে’

ইরানের সেনাবাহিনীর পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, তারা একেবারেই “অনিচ্ছাকৃতভাবে” ইউক্রেনের যাত্রীবাহী বিমানে ক্ষেপণাস্ত্র চালানো হয়েছে। ইরানের রাষ্ট্রীয় টেলিভিশনের একটি প্রতিবেদনে এ খবর জানানো হয়।

দেশটির সেনাবাহিনীর বিবৃতিতে আরও দাবি করা হয়, সেটি ছিলো মানুষের দ্বারা সংগঠিত একটি ভুল। বিমানটি সেসময় ইরানের রেভ্যুলেশনারি গার্ডস এর অনেক কাছে চলে আসায় ভুলটি ঘটে। এতে জড়িত সদস্যদের অবশ্যই শাস্তির আওতায় আনা হবে।

এর আগে গত ৩ জানুয়ারি ইরাকের রাজধানী বাগদাদ আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের কাছে মার্কিন বিমান হামলায় ইরানের শীর্ষ সামরিক কর্মকর্তা কাসেম সোলাইমানি নিহত হন। এর মাত্র চারদিন পর গত ৮ জানুয়ারি দিবাগত মধ্যরাতে ইরাকে অবস্থিত দুটি মার্কিন বিমান ঘাঁটিতে ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালায় ইরান। এর কয়েকঘণ্টা পরই ইরানের রাজধানী তেহরানের পাশে ইউক্রেনের ওই বিমান বিধ্বস্তের ঘটনায় ১৭৬ আরোহীর সবাই নিহত হন।

ইউক্রেনের বিমানটি তেহরানে বিধ্বস্ত হওয়ার পর যুক্তরাষ্ট্র দাবি করে আসছিল যে, ইরানের ছোড়া ক্ষেপণাস্ত্রের আঘাতই এর কারণ। কানাডার প্রধানমন্ত্রী জাস্টিন ট্রুডো বৃহস্পতিবার বলেন, সব প্রমাণ ইঙ্গিত দেয় যে, ইরানের একটি ক্ষেপণাস্ত্রের আঘাতেই মঙ্গলবার রাতে ইউক্রেনের একটি যাত্রীবাহী বিমান বিধ্বস্ত হয়েছে। তবে এই হামলা “অনিচ্ছাকৃত” হয়ে থাকতে পারে বলেও মন্তব্য করেন তিনি।

এদিকে, শনিবার (১১ জানুয়ারি) ইরানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী জাভেদ জারিফ এক টুইট-বার্তায় বলেন, একটা শোকের দিন। যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে এমন একটা উত্তেজনার আবহে ভুলবশত এই ঘটনার জন্য অত্যন্ত দুঃখিত। মৃতদের পরিবার-পরিজনদের প্রতি সমবেদনা জানাচ্ছি। এজন্য আমরা ক্ষমাপ্রার্থী।