• বৃহস্পতিবার, ফেব্রুয়ারি ২০, ২০২০
  • সর্বশেষ আপডেট : ১০:০৮ সকাল

ট্রাম্পের অভিশংসন অভিযোগকে ‘নির্লজ্জ ও অবৈধ’ হিসেবে আখ্যা

  • প্রকাশিত ০১:৫১ দুপুর জানুয়ারী ১৯, ২০২০
ডোনাল্ড ট্রাম্প
ডোনাল্ড ট্রাম্প। ফাইল ছবি : এএফপি

গত ডিসেম্বরে তৃতীয় মার্কিন প্রেসিডেন্ট হিসেবে অভিশংসিত হয়ে বিচারের মুখে পড়েন ট্রাম্প। মূলত তার বিরুদ্ধে, ক্ষমতার অপব্যবহার ও সংসদীয় কাজে বাধাপ্রদানের অভিযোগ আনা হয়

মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের আইনজীবীদের দল তার বিরুদ্ধে আনা অভিশংসন অভিযোগের বিষয়ে এই প্রথম কোনও আনুষ্ঠানিক বিবৃতি দিলো। যেটিকে তারা গণতন্ত্রের ওপর “মারাত্মক আঘাত” বলে বর্ণনা দিয়েছেন।

এমনকী সেখানে পুরো বিষয়টিকে, দেশটির ২০২০ সালের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে একটি “নির্লজ্জ” ও “অবৈধ” হস্তক্ষেপচেষ্টা বলেও আখ্যা দেওয়া হয়। এছাড়া তাদের অভিমত হলো, অভিশংসনপত্রে মার্কিন প্রেসিডেন্টের বিরুদ্ধে কোনরকম অপরাধের অভিযোগ দেখাতেই ব্যর্থ হয়েছে। 

ডেমোক্রেটদের পক্ষ থেকে অভিশংসন শুনানিতে তাদের বক্তব্য পেশ করার প্রতিক্রিয়ায় ট্রাম্পের আইনজীবীরা এই মন্তব্য করেন। 

এর আগে গত ডিসেম্বরে তৃতীয় মার্কিন প্রেসিডেন্ট হিসেবে অভিশংসিত হয়ে বিচারের মুখে পড়েন ট্রাম্প। মূলত তার বিরুদ্ধে, ক্ষমতার অপব্যবহার ও সংসদীয় কাজে বাধাপ্রদানের অভিযোগ আনা হয়। যদিও ট্রাম্প কোনরকম অপরাধে জড়িত ছিলেন না বলে  এই মামলাকে একটি “ধাপ্পাবাজি” হিসেবে আখ্যা দিয়ে তা নাকচ করে দেন।

ইমপিচমেন্ট ট্রায়ালে হাজির করার জন্য ট্রাম্পের আইনজীবীদল ছয়পৃষ্ঠার বিশাল এক সারসংক্ষেপ প্রস্তুত করেছে।

হোয়াইট হাউজ কাউন্সেল প্যাট সিপোলোনি ও ট্রাম্পের ব্যক্তিগত আইনজীবী জে সেকুলোর নেতৃত্বে গঠিত প্রেসিডেন্টের আইনজীবীদল জানিয়েছে, ইমপিচমেন্ট প্রস্তাবকে সাংবিধানিক ও পদ্ধতিগত দুইভাবেই মোকাবেলা করা হবে।

তাদের বক্তব্য, প্রেসিডেন্ট ভুল কিছু করেননি এবং তাকে যথাযথভাবে মূল্যায়ন করা হয়নি। এছাড়াও দলটির অভিযোগ, ইমপিচমেন্ট চার্জ প্রেসিডেন্টের “অপরাধ” প্রমাণে ব্যর্থ হয়েছে।