• মঙ্গলবার, এপ্রিল ০৭, ২০২০
  • সর্বশেষ আপডেট : ১০:১০ সকাল

করোনাভাইরাসের দিনগুলিতে প্রেম

  • প্রকাশিত ০৬:১৪ সন্ধ্যা ফেব্রুয়ারি ১৪, ২০২০
চীন-করোনভাইরাস-প্রেম
ছবি: এএফপি

এখন পর্যন্ত রোগটিতে আক্রান্ত হয়েছেন প্রায় ৬৪ হাজার মানুষ। চীনে এখন পর্যন্ত মৃত্যুর সংখ্যা ১,৩৫০

চীনা তরুণী জিয়াং প্রেমিকের বাড়ি ইউক্রেনে। প্রেয়সীর সঙ্গে সাংহাইয়ের মডার্ন আর্ট গ্যালারি, সুঝোউর মনোরম উদ্যান আর বেইজিংয়ে আইস-স্কেটিং করে এই ভ্যালেন্টাইন'স ডে স্মরণীয় করে রাখতে চীনে গিয়েছিলেন তিনি।

কিন্তু, বিধিবাম! করোনাভাইরাসের ভয়ে গত কয়েক সপ্তাহ ধরে তারা আটকা পড়ে আছেন লিয়াওনিং প্রদেশে জিয়াংয়ের বাবা-মায়ের বাড়িতে।

নভেল করোনাভাইরাস সৃষ্ট কোভিড-১৯ রোগের অযাচিত আগমন চীনা প্রেমিক যুগলদের ভালোবাসা দিবসকে মাটি করে দিয়েছে।

এখন পর্যন্ত রোগটিতে আক্রান্ত হয়েছেন প্রায় ৬৪ হাজার মানুষ। চীনে এখন পর্যন্ত মৃত্যুর সংখ্যা ১,৩৫০। এমন পরিস্থিতিতে বন্ধ হয়ে গেছে চীনের অভ্যন্তরীণ যোগাযোগ ব্যবস্থা, তালা ঝুলছে রেস্টুরেন্টগুলোতে আর শুন্যে পৌঁছেছে ভ্রমণকেন্দ্রগুলোর দর্শনার্থী সংখ্যা।


আরও পড়ুন - সৌদি তরুণ-তরুণীদের গোপন প্রেমের গল্প


অন্যান্য যুগলের মতো এই পরিস্থিতি জিয়াং আর তার ভিনদেশী প্রেমিকের জন্যও এক অলিখিত বন্দিদশা। লন্ডনে পড়াশোনার সময় তাদের পরিচয় হয়েছিল।

জিয়াংয়ের ভাষায়, “প্রতিদিন ঘরের ভেতর দুই-তিন ঘণ্টা খেলাধুলা করে সময় কাটাই আমরা।”

কোভিড-১৯ রোগে সৃষ্ট দুরাবস্থায় ভেস্তে গেছে আগে থেকে বুক করে রাখা এই জুটির ২০ হাজার টাকারও বেশি (২৪০ ডলার) মূল্যের লবস্টার ডিনার।

এমনকি খুব বেশি বাইরেও যাওয়া হচ্ছে না এই জুটির। অপ্রত্যাশিত হলেও স্বাভাবিকভাবেই হচ্ছে না ফুল দেওয়া-নেওয়াও।


আরও পড়ুন - প্রেমিক-প্রেমিকাদের জন্য হোটেল রুমের ব্যবস্থা করছে অ্যাপস


ভ্যালেন্টাইন'স ডে'র ব্যবসা 

এমন ভুক্তভোগী চীনের প্রতিটি মানুষ, প্রতিটি যুগল। তাই ভ্যালেন্টাইন'স ডে-কে ঘিরে মৌসুমি ব্যবসায়ও এ বছর পড়েছে ভাটা। দেশটির ফুলের দোকানে নেই বেচা-কেনা। ৭০% পর্যন্ত কমে গেছে ব্যবসা।

দীর্ঘদিন ধরে দেশটিতে অনুষ্ঠিত হচ্ছে না কোনো বিয়ে। করোনাভাইরাসের ভয়ে যুগলরা বিয়ের অনুষ্ঠান স্থগিত রাখছেন।