• সোমবার, এপ্রিল ০৬, ২০২০
  • সর্বশেষ আপডেট : ০৫:৪৩ সন্ধ্যা

করোনাভাইরাস: ইতালিতে একদিনে ৩৬৮ জনের মৃত্যু

  • প্রকাশিত ১১:৪৫ সকাল মার্চ ১৭, ২০২০
রোম-করোনাভাইরাস
রোমের ট্রেভি ফাউন্টেনের সামনে মাস্ক পরিহিত অবস্থায় দুই পর্যটক। ফাইল ছবি। এএফপি

দেশটিতে ২৭ হাজারেরও বেশি মানুষ এ ভাইরাস আক্রান্ত হয়েছেন

চীন থেকে উৎপত্তি হলেও বিশ্বব্যাপী প্রায় ১৫৭টিরও বেশি দেশে ছড়িয়ে পড়া এ ভাইরাসটিতে বিপর্যস্ত ইউরোপের দেশগুলো। ইউরোপের কয়েকলাখ মানুষ বর্তমানে ‘লকডাউন’ অবস্থায় আছে। চীনের পর বর্তমানে সবচেয়ে বিপর্যস্ত অবস্থায় রয়েছে ইতালি। দেশটিতে ২৭ হাজারেরও বেশি মানুষ এ ভাইরাস আক্রান্ত হয়ে মঙ্গলবার দেশটিতে ৩৬৮ জনের মৃত্যু হয়েছে। এনিয়ে মারা গেছেন ২ হাজার ১৫৮ জন। 

ইউরোপের মধ্যে দ্বিতীয় বিপর্যস্ত দেশ স্পেনেও ৯ হাজার ৯০০ জনের বেশি এ ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। মারা গেছেন ৩৪২ জন। এরপরই রয়েছে জার্মানির অবস্থান, দেশটি ৭ হাজারেরও বেশি সংখ্যক মানুষ এ রোগে আক্রান্ত হয়েছেন।

এশিয়ার দেশগুলোর মধ্যে সবচেয়ে খারাপ অবস্থায় রয়েছে ইরান। দেশটিতে প্রায় ১৫ হাজার মানুষ আক্রান্ত এ ভাইরাসে। মারা গেছেন ৮৫২ জন। এরপরেই রয়েছে দক্ষিণ কোরিয়া। দেশটিতে ৮ হাজার মানুষ আক্রান্ত হয়েছেন, মারা গেছেন ৮৪ জন। তবে ১ হাজার ৪০০জনের বেশি মানুষ সম্পূর্ণ সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরে গেছেন।

এদিকে যুক্তরাষ্ট্রে এ ভাইরাস আক্রান্ত থেকে বাঁচাতে জাতীয় জরুরি অবস্থা জোরি করা হয়েছে। নিউই্য়র্ক, লসএঞ্জেলসের মতো শহরগুলো বন্ধ রয়েছে স্কুল, কলেজ, রেস্টুরেন্ট।

চীনে উৎপত্তি হওয়া নভেল করোনাভাইরাস সৃষ্ট রোগ কোভিড-১৯ এ আক্রান্তের সংখ্যা ছাড়িয়েছে এক লাখ ৮১ হাজার। মঙ্গলবার (১৭ মার্চ) পর্যন্ত মহামারি আকার ধারণ করা এ রোগে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন ৭ হাজার ১০০ জন।