Wednesday, May 22, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

যৌন নিপীড়নের দায়ে সিবিএস টেলিভিশন প্রধানের পদত্যাগ

মুনভেসের বিরুদ্ধে অভিযোগকারীদের কেউ কেউ বলেছেন, মুনভেস তাদের যৌনকর্মে বাধ্য করেছেন; রাজি না হওয়ায় মুনভেস ক্যারিয়ার শেষ করে দিয়েছেন বলেও অভিযোগ করেছেন কয়েকজন।

আপডেট : ১০ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ০৬:০২ পিএম

যৌন নিপীড়নের নতুন অভিযোগ সামনে চলে আসার পর পদত্যাগ করলেন যুক্তরাষ্ট্রের সিবিএস টেলিভিশনের প্রধান লেস মুনভেস।

বিবিসির জানায়, গত জুলাই মাসে নিউ ইয়র্কার ম্যাগাজিনে লেস মুনভেসের বিরুদ্ধে ছয় নারীর অভিযোগ প্রকাশিত হলে সিবিএস কর্তৃপক্ষ তদন্ত শুরু করেছিল। রবিবার নতুন করে ছয় নারী মুখ খোলার পর পদত্যাগ করলেন মুনভেস। 

৬৮ বছর বয়সী মুনভেস এসব অভিযোগ অস্বীকার করে আসছেন। রোববার এক বিবৃতিতে তিনি বলেছেন, এমন সব ‘মিথ্যা অভিযোগ’ তার বিরুদ্ধে আনা হয়েছে, যা তার ব্যক্তিজীবনের সঙ্গে যায় না।   

তবে মুনভেস ও সিবিএস টেলিভিশন ‘মি টু’ আন্দোলনে দুই কোটি ডলার চাঁদা দেওয়ারও ঘোষণা দিয়েছেন।   

সিবিএস টেলিভিশনের এক বিবৃতিতে বলা হয়, লেস মুনভেস কোম্পানির চেয়ারম্যান, প্রেসিডেন্ট ও সিইওর পদ থেকে সরে যাচ্ছেন এবং তা তাৎক্ষণিকভাবে কার্যকর হচ্ছে। তার বদলে সিবিএসের প্রেসিডেন্ট এবং ভারপ্রাপ্ত সিইও হিসেবে আসছেন জোসেফ ল্যানিয়েলো।

সিবিএসের পক্ষ থেকে জানানো হয়, যৌন নিপীড়নের অভিযোগের তদন্ত শেষ না হওয়া পর্যন্ত অবসর সুবিধার কোনো অর্থ মুনভেস নেবেন না। আর ‘মি টু’ মুভমেন্টের জন্য দানের টাকা সেখান থেকে কেটে রাখা হবে। 

১৯৯৫ সালে সিবিএসে যোগ দেওয়া মুনভেস ২০০৬ সালে কোম্পানির সিইও হন। এরপর এক দশকে তিনি কোম্পানিকে বিপুল লাভের মুখ দেখান। তাকে বিবেচনা করা হয় যুক্তরাষ্ট্রের মিডিয়ার অন্যতম প্রভাবশালী প্রধান নির্বাহী হিসেবে।

মুনভেসের বিরুদ্ধে অভিযোগকারীদের কেউ কেউ বলেছেন, মুনভেস তাদের যৌনকর্মে বাধ্য করেছেন; রাজি না হওয়ায় মুনভেস ক্যারিয়ার শেষ করে দিয়েছেন বলেও অভিযোগ করেছেন কয়েকজন।


About

Popular Links