Saturday, May 18, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

সহিংসতার আশঙ্কায় যুক্তরাষ্ট্রজুড়ে সতর্কতা

ট্রাম্প সমর্থকরা ৫০টি রাজ্যের রাজধানীতে সশস্ত্র সমাবেশ করতে পারে বলে হুঁশিয়ারি দিয়েছে এফবিআই

আপডেট : ১৭ জানুয়ারি ২০২১, ০১:২৬ পিএম

জো বাইডেনের প্রেসিডেন্ট হিসেবে অভিষেক সামনে রেখে সহিংস বিক্ষোভের শঙ্কায় যুক্তরাষ্ট্রের ৫০টি রাজ্যের সবগুলো ও ডিস্ট্রিক্ট অব কলম্বিয়ায় সতর্কতা জারি করা হয়েছে।

বুধবার (২০ জানুয়ারি) যুক্তরাষ্ট্রের নবনির্বাচিত প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের শপথ অনুষ্ঠানের আগে রবিবার দেশজুড়ে সশস্ত্র প্রতিবাদ হতে পারে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে।

গত সপ্তাহের ভয়াবহ দাঙ্গার পুনরাবৃত্তি ঠেকাতে ন্যাশনাল গার্ড বাহিনীকে ওয়াশিংটন ডিসিতে পাঠানো হয়েছে। ট্রাম্প সমর্থকরা ৫০টি রাজ্যের রাজধানীতে সশস্ত্র সমাবেশ করতে পারে বলে হুঁশিয়ারি দিয়েছে এফবিআই।

এই কঠোর নিরাপত্তার মধ্যেই গত শুক্রবার ডিসি থেকে এক অস্ত্রধারী ব্যক্তিকে গ্রেফতার করা হয়েছে। তার কাছে এমন পরিচয়পত্র পাওয়া গেছে যা সরকারের ইস্যু করা নয়। নিরাপত্তা চৌকিতে তল্লাশি চালানোর সময় ওই ব্যক্তির কাছ থেকে অন্তত একটি আগ্নেয়াস্ত্র ও ৫০৯ রাউন্ড গুলি উদ্ধার করা হয়।

কর্তৃপক্ষ ওয়াশিংটনে নিরাপত্তা জোরদার করার মধ্যেই এই আটকের ঘটনা ঘটলো। এছাড়া রাজধানী থেকে কয়েক মাইল দূর পর্যন্ত বহু রাস্তা কংক্রিটের ব্যারিকেড এবং ধাতব বেড়া দিয়ে আটকে দেওয়া হয়েছে।

অভিষেক অনুষ্ঠানে যে ন্যাশনাল মলে হাজার হাজার মানুষের সমাগম হতো, এই স্থানটি সিক্রেট সার্ভিসের অনুরোধে বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। এই সংস্থাটি মার্কিন প্রেসিডেন্টের সুরক্ষায় বিশেষভাবে কাজ করে।

বাইডেনের দল ইতোমধ্যে মার্কিন জনগণকে বলেছেন, তারা যেন কোভিড ১৯ মহামারির বিষয়টি মাথায় রেখে দেশটির রাজধানীতে ভ্রমণ এড়িয়ে চলেন। স্থানীয় কর্মকর্তারাও বলছেন, মানুষের উচিৎ হবে এই অভিষেক অনুষ্ঠান আলাদাভাবে দেখা।

রবিবারকে ঘিরে বিক্ষোভ হতে পারে বলে ধারণা করা হচ্ছিল। কারণ ট্রাম্পপন্থী ও ডানপন্থী অনলাইন নেটওয়ার্কগুলোর পোস্টে এই দিনেই সশস্ত্র বিক্ষোভের ডাক দেওয়া হয়েছে। পরে কঠোর নিরাপত্তার দিকটি উল্লেখ করে কিছু মিলিশিয়া তাদের অনুসারীদের উপস্থিত না হওয়ার জন্য বলেছে।

ডোনাল্ড ট্রাম্প প্রথম মার্কিন প্রেসিডেন্ট হিসেবে দুইবার অভিশংসনের মুখে পড়ার মধ্যেই এমন ঘটনা ঘটলো। বিক্ষোভকারীদের উস্কানি দেওয়ার অভিযোগে তিনি এখন সেনেটের বিচারের মুখোমুখি। 

গত ৬ জানুয়ারি তার সমর্থকদের ক্যাপিটল হিলে সহিংস অবস্থান নেওয়ায় তাকে বিচারের আওতায় আনা হয়েছে। প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে জো বাইডেনের জয়কে কংগ্রেসকে অনুমোদন দেওয়ার দিনেই এমন ঘটনা ঘটে। কংগ্রেসের ওই অধিবেশন বানচাল করার উদ্দেশ্যে এমন হামলা চালানো হয়।

About

Popular Links