Wednesday, May 22, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

প্রথম দেশ হিসেবে দুটি ভিন্ন ডোজের টিকা দেওয়ার ঘোষণা থাইল্যান্ডের

মূলত করোনাভাইরাসের ডেল্টা ভ্যারিয়েন্টের সংক্রমণ রোধেই এ ব্যবস্থা

আপডেট : ১২ জুলাই ২০২১, ০৭:৩৭ পিএম

থাইল্যান্ড তাদের গণটিকাদান কর্মসূচির নীতি পরিবর্তন করে দুই রকম টিকা মিলিয়ে দেওয়ার ঘোষণা দিয়েছে। সুরক্ষা বাড়াতে টিকা গ্রহণে যারা প্রথম ডোজ হিসেবে সিনোভ্যাকের টিকা নিয়েছিল, তাদের দ্বিতীয় ডোজ হিসাবে অ্যাস্ট্রোজেনেকা টিকা প্রদান করা হবে।

সোমবার (১২ জুলাই) এক সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে থাইল্যান্ডের স্বাস্থ্যমন্ত্রী অনুতিন চার্নভিরাকুল এ ঘোষণা দিয়েছেন বলে জানিয়েছে রয়টার্স।

মূলত করোনাভাইরাসের ডেল্টা ভ্যারিয়েন্টের সংক্রমণ রোধেই এ ব্যবস্থা বলে জানান তিনি। তিনি বলেন, "এটি ডেল্টা ভ্যারিয়েন্টের বিরুদ্ধে সুরক্ষা নিশ্চিত করতে এবং রোগের বিরুদ্ধে উচ্চ স্তরের আক্রমণ থেকে সুরক্ষার জন্যই এ ব্যবস্থা"।

এখন পর্যন্ত অ্যাস্ট্রোজেনেকা ও সিনোভ্যাক টিকার মিশ্রণ নিয়ে কোনো গবেষণা হয়নি। তবে অনেক দেশই ইতোমধ্যে টিকা গ্রহণের অংশ হিসেবে দুইটি ভিন্ন টিকার ডোজ গ্রহণের ব্যাপারে চিন্তাভাবনা করছে। পাশাপাশি বিপদজনক ভ্যারিয়েন্টের সংক্রমণ রোধকল্পেও দীর্ঘমেয়াদী সুরক্ষার পরিকলপনার অংশ হিসেবে তৃতীয় বুস্টার ডোজ গ্রহণের কথাও ভাবছে।

চীনের তৈরি সিনোভ্যাক টিকার দুই ডোজ নেয়ার পরও থাইল্যান্ডের ছয় শতাধিক স্বাস্থ্যকর্মী করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে। এদের মধ্যে একজন নার্স মারা গেছেন এবং আরেকজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক। এরপরই দুই ধরনের ডোজ মিলিয়ে টিকা দেওয়ার ঘোষণা দিলো দেশটির স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়। 

যে স্বাস্থ্যকর্মীরা ইতোমধ্যেই সিনোভ্যাকের দুটি ডোজই নিয়েছেন তাদের তৃতীয় আরেকটি বুস্টার ডোজ দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে স্বাস্থ্য কর্তৃপক্ষ। তৃতীয় ডোজটি অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকাও হতে পারে অথবা ফাইজার/বায়োএনটেকের মতো এমআরএনএ টিকাও হতে পারে।

এসব স্বাস্থ্যকর্মীকে দ্বিতীয় সিনোভ্যাক ডোজ দেওয়ার তিন থেকে চার সপ্তাহ পর তৃতীয় ডোজটি দেওয়া হবে বলে জানা যায়।  

বর্তমানে সিনোভ্যাক ছাড়া থাইল্যান্ডে কেবল অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকাই আছে। তবে যুক্তরাষ্ট্রের ফাইজার/বায়োএনটেকের টিকা শিগগিরই দেশটিতে পৌঁছাবে বলে আশা করা যাচ্ছে।

সম্প্রতি ৭০০ জন চিকিৎসা কর্মীদের নিয়ে হওয়া এক সমীক্ষায় ইঙ্গিত দেখা যায়, সিনোভ্যাক টিকার দ্বিতীয় ডোজ হওয়ার পরে প্রথম দুই মাসে টিকাটির সুরক্ষা হার ৬০ থেকে ৭০ শতাংশ থাকলেও এরপর ৪০ দিনের ব্যবধানে টিকার কার্যক্ষমতা অর্ধেকে নেমে আসতে থাকে।

দেশটির স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় জানায়, এখন পর্যন্ত ৬ লাখ ৭৭ হাজারেরও বেশি স্বাস্থ্যকর্মীকে সিনোভ্যাক টিকার দুটি ডোজ দেওয়া হয়েছে। তাদের মধ্যে এপ্রিল থেকে জুলাইয়ের মধ্যে ৬১৮ জন করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। 

রবিবার (১১ জুলাই) থাইল্যান্ডে নতুন ৯ হাজার ৪১৮ জন রোগী কোভিড শনাক্ত হয়েছে এবং ৯১ জনের মৃত্যু হয়েছে, যা কি না দুটি ক্ষেত্রেই দেশটির নতুন রেকর্ড।

থাইল্যান্ডে এখন পর্যন্ত ৩ লাখ ৩০ হাজার মানুষ করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছে। দেশটিতে ২৭১১ জনের মৃত্যু হয়েছে।

About

Popular Links