Tuesday, May 28, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

আফগানিস্তানে ‘অন্তর্বর্তী সরকার’ নিয়ে আলোচনা চলছে

তালেবানের যোদ্ধারা দেশটির প্রেসিডেন্ট প্যালেসে পৌঁছেছেন। অন্তর্বর্তীকালীন সরকারে প্রধান হিসেবে দেশটির সাবেক স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ও কূটনীতিক আলী আহমাদ জালালির নাম শোনা যাচ্ছে

আপডেট : ১৫ আগস্ট ২০২১, ০৬:২৬ পিএম

দুই দশকের যুদ্ধের পর আবারও আফগানিস্তানের ক্ষমতায় ফিরছে দেশটির সশস্ত্র বিদ্রোহীগোষ্ঠী তালেবান।

রবিবার সকাল থেকে আফগানিস্তানের রাজধানী কাবুল চারদিক থেকে ঘিরে ফেলার পাশাপাশি রাজধানীতে ঢুকতেও শুরু  তালেবান বাহিনী। এই পরিস্থিতিতে ‘শান্তিপূর্ণভাবে ক্ষমতা হস্তান্তরের’ আলোচনা শুরু হয়েছে তালেবান ও আশরাফ ঘানি সরকারের মধ্যে। স্থানীয় গণমাধ্যম বলছে, তালেবানের যোদ্ধারা দেশটির প্রেসিডেন্ট প্যালেসে পৌঁছেছেন।

বর্তমান সরকার ‘অন্তর্বর্তীকালীন সরকারের’ হাতে ক্ষমতা হস্তান্তর করবে। আর এই অন্তর্বর্তীকালীন সরকারে প্রধান হিসেবে দেশটির সাবেক স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ও কূটনীতিক আলী আহমাদ জালালির নাম শোনা যাচ্ছে।

আন্তর্জাতিক বার্তা সংস্থা রয়টার্সের এক প্রতিবেদনে এই তথ্য জানানো হয়েছে।

এদিকে, তালেবান মুখপাত্র জাবিউল্লাহ মুজাহিদ এর আগে এক বিবৃতিতে বলেন, “শান্তিপূর্ণ ও সন্তোষজনক ক্ষমতা হস্তান্তরের বিষয়ে যতক্ষণ না ঐকমত্য হচ্ছে, আমাদের যোদ্ধারা কাবুলের সব প্রবেশ পথে পাহারায় থাকবে।” 

প্রসঙ্গত, দেশের বিভিন্ন এলাকা একে একে তালেবানের দখলে চলে যাওয়ায় হাজার হাজার মানুষ নিরাপত্তার আশায়  গত কয়েক দিন ধরে কাবুলে এসে আশ্রয় নিয়েছিল। কিন্তু কাবুলেও তালেবানরা প্রবেশ করায় আশ্রয় গ্রহণকারীরা মরিয়া হয়ে কাবুল ছাড়ার চেষ্টা করছেন।

চলমান পরিস্থিতিতে পশ্চিমা বিভিন্ন দেশের সরকার তাদের দূতাবাস খালি করে ফেলতে এবং আফগানিস্তানে থাকা দেশগুলোর নাগরিক ও তাদের সঙ্গে কাজ করা আফগানদের যত দ্রুত সম্ভব দেশটি থেকে সরিয়ে নিতে তৎপর হয়েছে।

যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন আফগানিস্তান থেকে নিরাপদে ও সুশৃঙ্খলভাবে মার্কিন নাগরিক এবং সামরিক বাহিনীর সদস্যদের সরিয়ে নিতে শনিবার আরও ৫ হাজার সেনা মোতায়েনের অনুমতি দেন।

যুক্তরাজ্যও আফগানিস্তানে তাদের দূতাবাস খালি করার কাজ এগিয়ে নিচ্ছে। দেশটিতে নিযুক্ত ব্রিটিশ রাষ্ট্রদূত রবিবার স্থানীয় সময় সন্ধ্যায় আফগানিস্তান ছাড়বেন বলে জানিয়েছে যুক্তরাজ্যের গণমাধ্যমগুলো।

আফগান সরকার ও বিদ্রোহীদের মধ্যে আলোচনার আয়োজন করা কাতার তালেবান বাহিনীকে যুদ্ধবিরতি ঘোষণার আহ্বান জানিয়েছে। যেকোনো ধরনের যুদ্ধবিরতির ক্ষেত্রে আফগানিস্তানের রাষ্ট্রপতি আশরাফ ঘানিকে পদত্যাগ করার শর্ত দিয়েছে তালেবান। তবে এখন পর্যন্ত আফগান প্রেসিডেন্টের কাছ থেকে তাদের এ শর্ত মেনে নেওয়ার কোনো ইঙ্গিত পাওয়া যায়নি।

উল্লেখ্য, যুক্তরাষ্ট্রের নেতৃত্বে বিগত ২০ বছর ধরে আফগানিস্তানে যুদ্ধ চলার পর সেখান থেকে যুক্তরাষ্ট্র এবং অন্যান্য দেশ সেনা প্রত্যাহার শুরু হলে সেখানে আবার তীব্র লড়াই শুরু হয়। গত মে মাস থেকে আফগানিস্তানে নতুন উদ্যমে লড়াই শুরু করার পর এখন পর্যন্ত আফগানিস্তানের ২০টি প্রাদেশিক রাজধানী দখলে নিয়েছে তালেবানরা।

About

Popular Links