Tuesday, May 21, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

শ্রীলঙ্কার হাসপাতালগুলোতে ওষুধের মজুদ প্রায় শেষ, শঙ্কিত চিকিৎসকরা

মেডিকেল অ্যাসোসিয়েশনের পক্ষ থেকে বলা হয়েছে,হাসপাতালগুলিতে জীবনদায়ী ওষুধের স্টক একেবারে কমে গেছে। নতুন ওষুধ না এলে আর চিকিৎসা করা সম্ভব হবে না

আপডেট : ১২ এপ্রিল ২০২২, ১০:৩০ এএম

শ্রীলঙ্কার হাসপাতালগুলিতে দ্রুত ওষুধ শেষ হয়ে যাচ্ছে। দেশটির প্রেসিডেন্ট অফিসের দরজা ঘিরে বিক্ষোভ করছে আন্দোলনকারীরা। এ সময়ে এ সতর্কতাবাণী দেশটির চিকিৎসকদের। 

শ্রীলঙ্কার মেডিকেল অ্যাসোসিয়েশনের পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, শ্রীলঙ্কার হাসপাতালগুলিতে জীবনদায়ী ওষুধের স্টক একেবারে কমে গেছে। নতুন ওষুধ না এলে আর চিকিৎসা করা সম্ভব হবে না। দেশের হাসপাতালগুলি চিকিৎসার জন্য জরুরি বিদেশি ওষুধ ও সরঞ্জাম পাচ্ছে না। ফলে রুটিন সার্জারি আর করা যাচ্ছে না। যা অবস্থা, তাতে কিছুদিনের মধ্যেই জীবনদায়ী সার্জারিও বন্ধ করে দিতে হবে। 

 শ্রীলঙ্কার প্রেসিডেন্টের কার্যালয় এখন বিক্ষোভকারীদের দখলে। এই নিয়ে দুইদিন ধরে বিক্ষোভকারীরা এই জায়গাটি নিজেদের দখলে রেখেছেন। প্রচণ্ড বৃষ্টির মধ্যেও রেইনকোট পরে, ছাতা নিয়ে বিক্ষোভকারীরা ওখানে বসে আছেন। 

তাদের দাবি, প্রেসিডেন্ট গোটাবায়া রাজাপাকসেকে ইস্তফা দিতে হবে, নতুন নেতাদের দেশ-শাসন করার দায়িত্ব দিতে হবে। 

টাইমস অফ ইন্ডিয়া জানাচ্ছে, ৩২ বছর বয়সি সাবেক সেনা সঞ্জীব পুষ্পকুমারা বলেছেন, যতক্ষণ পর্যন্ত দাবিপূরণ না হচ্ছে, ততক্ষণ তারা বিক্ষোভ দেখিয়ে যাবেন। গুরুত্বপূর্ণ বৈঠক প্রেসিডেন্ট গোটাবায়া রাজাপাকসে সাবেক প্রধানমন্ত্রী ও শ্রীলঙ্কা ফ্রিডম পার্টির নেতা শ্রীসেনার সঙ্গে গুরুত্বপূর্ণ বৈঠক করেছেন। 

বিরোধীরা জানিয়েছে, রাজাপাকসে জাতীয় সরকার চাইছেন। কিন্তু বিরোধী নেতারা তাতে যোগ দিতে রাজি নন। রাজাপাকসে এখন নতুন মন্ত্রিসভা গঠনের জন্য উঠেপড়ে লেগেছেন, সেখানে তার পরিবারের প্রতিনিধি কম থাকবে। কিন্তু বিরোধীরা রাজাপাকসের প্রস্তাব মানতে রাজি নন। 

ভারতের জিনিস কলম্বোতে 

ভারত ইতিমধ্যে ২৭ হাজার মেট্রিক টন তেল পাঠিয়েছে। এবার ভারত থেকে রেশন ও সবজি কলম্বো পৌঁছেছে। 

ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস জানাচ্ছে, শ্রীলঙ্কায় বিক্ষোভকারীরা জানিয়েছেন, ''ভারত আমাদের সাহায্য করছে বলে ধন্যবাদ। কিন্তু ভারত যেন আমাদের সরকারকে কোনো সাহায্য না করে। আমরা চাই, এই সরকার যাক।'' 

About

Popular Links