Saturday, May 25, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

দুধের কেজি ৬,০০০ টাকা, চাকরি ছেড়ে গাধা পালছেন প্রকৌশলী

গাধার দুধ থেকে প্রসাধনী তৈরির পরিকল্পনাও রয়েছে ভারতের কর্ণাটকের বাসিন্দা শ্রীনিবাস গৌড়ার

আপডেট : ১৬ জুন ২০২২, ০৬:৫২ পিএম

সফটওয়্যার কোম্পানিতে সকাল নয়টা থেকে বিকেল পাঁচটার বাধাধরা নিয়মের চাকরি ভালো লাগছিল না ভারতের কর্ণাটকের বাসিন্দা ৪২ বছর বয়সি শ্রীনিবাস গৌড়ার।তাই ছেড়েই দেন সেই চাকরি।

 এরপর ভিন্ন কিছু করার চিন্তা থেকে পশুপালন বিদ্যায় ডিগ্রি অর্জন করেন।

পড়াশোনা শেষে কর্নাটকের দক্ষিণ কন্নড় গ্রামের জমিতে শ্রীনিবাস শুরু করেন গাধার খামার।

তারপর থেকেই বদলে যেতে থাকে শ্রীনিবাসের জীবনের গল্প। গাধার দুধ বিপণন শুরু করে রীতিমত চমক সৃষ্টি করেছেন তিনি।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম হিন্দুস্তান টাইমস জানায়, ৩০ মিলিলিটারের গাধার দুধের দাম ১৫০ রুপি। সেই হিসেবে বাংলাদেশি মুদ্রায় প্রতি কেজি গাধার দুধের দাম প্রায় ৬ হাজার টাকা।

২০টি গাধা ও ৪২ লাখ রুপি বিনিয়োগ করে ব্যবসা শুরু করা শ্রীনিবাস গৌড়া বলেন, “আমি আগে ২০২০ সাল পর্যন্ত একটি সফ্টওয়্যার ফার্মে নিযুক্ত ছিলাম। ভারতে এবং কর্ণাটকের এই প্রথম গাধা চাষ এবং প্রশিক্ষণ কেন্দ্র খুলেছি।”

গাধার দুধের উপকারিতা এবং খামারের জন্য তার পরিকল্পনা সম্পর্কে শ্রীনিবাস বলেন, “গাধার দুধের অনেক উপকারিতা রয়েছে। আমাদের স্বপ্ন হল গাধার দুধ সবার কাছে পৌঁছে দেওয়া। গাধার দুধ একটি ওষুধের ফর্মুলা।”



তিনি বলেন, “গাধা বিলুপ্ত হচ্ছে বলেই এই ব্যবসা চালুর কথা চিন্তা করি। কিন্তু প্রথম দিকে অনেকেই এই ব্যবসার ধারণাকে পাত্তা দেননি।”

শ্রীনিবাস গৌড়া জানান, তিনি ইতিমধ্যে ১৭ লাখ রুপি মূল্যের অর্ডার পেয়েছেন। তার খামারের গাধার দুধের প্যাকেট মল, দোকান ও সুপারমার্কেটে পাওয়া যাবে। 

এছাড়া গাধার দুধ থেকে প্রসাধনী তৈরির পরিকল্পনাও রয়েছে শ্রীনিবাসের।

About

Popular Links