Tuesday, May 28, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

‘অসুস্থতা’ গুঞ্জনের পর জনসমক্ষে এলেন খামেনি

প্রকাশিত এক ছবিতে শিয়া মতাবলম্বীদের ধর্মীয় শোক-উৎসব আরবাইন পালন উপলক্ষে কালো পোশাক ও মাস্ক পরিহিত অবস্থায় উপস্থিত হতে দেখা যায় খামেনিকে 

আপডেট : ১৭ সেপ্টেম্বর ২০২২, ০৮:১৩ পিএম

গুরুতর ‘অসুস্থতার’ গুঞ্জনে আড়ালে থাকার পর জনসমক্ষে এসেছেন ইসলামি প্রজাতন্ত্র ইরানের সর্বোচ্চ নেতা আয়াতুল্লাহ আলী খামেনি।

কাতারভিত্তিতক গণমাধ্যম আল-জাজিরার প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

প্রকাশিত এক ছবিতে শিয়া মতাবলম্বীদের ধর্মীয় শোক-উৎসব আরবাইন পালন উপলক্ষে কালো পোশাক ও মাস্ক পরিহিত অবস্থায় উপস্থিত হতে দেখা যায় খামেনিকে। 

ইরানে প্রতিবছরই বিশ্বনবী (সা.)-এর দৌহিত্র হজরত ইমাম হোসাইন (রা.) শাহাদত বার্ষিকীকে কেন্দ্র করে সর্বোচ্চ নেতাকে নিয়ে এই আরবাইন উৎসবের আয়োজন করে দেশটির শিক্ষার্থীরা। তবে গত দুবছর করোনা মহামারির কারণে তা বন্ধ ছিল। 

খামেনির ওয়েবসাইটে প্রকাশিত ছবিতে সর্বোচ্চ নেতাকে সবাইকে নিয়ে হাঁটতে ও উপস্থিত জনতার দিকে হাত নেড়ে শোক অনুষ্ঠান পালন করতে দেখা গেছে।

কদিন ধরেই একাধিক অসমর্থিত সূত্রের বরাতে কয়েকটি গণমাধ্যম ৮৩ বছর বয়সী এই সর্বোচ্চ নেতা ‘‘গুরুতর অসুস্থতা’’ নিয়ে খবর প্রকাশ করে। সেসব খবর প্রকাশের পর এটাই খামেনির জনসমক্ষে প্রথম উপস্থিতি।

শুক্রবার মার্কিন গণমাধ্যম নিউ ইয়র্ক টাইমস চারটি অজ্ঞাত সূত্রের বরাত দিয়ে এক প্রতিবেদন প্রকাশ করে।

সেই প্রতিবেদনে গুরুতর পেটে ব্যথার কারণে খামেনির স্বাস্থ্যের অবনতি ঘটেছে ও অস্ত্রোপচারের মধ্য দিয়ে যেতে হয়েছে বলে দাবি করে সংবাদমাধ্যমটি।

এমনকি খামেনি এতটাই দুর্বল হয়ে পড়েছেন যে, তিনি সমস্ত জনসভা বাতিল করেছেন বলেও উল্লেখ করা হয় ওই প্রতিবেদনে। 

যদিও এ নিয়ে বরাবরের মতোই কিছুই জানায়নি ইরানের সরকার ও রাষ্ট্রীয় সংবাদমাধ্যমগুলো। তারপর আজ শনিবার (১৭ সেপ্টেম্বর) জনসমক্ষে আসতে দেখা গেল এই নেতাকে।

ইরানের সর্বোচ্চ ধর্মীয় নেতা আয়াতুল্লাহ আলি খামেনি দীর্ঘ ৩৩ বছর ধরে তিনি ইসলামিক রিপাবলিক অব ইরানের নেতৃত্বে রয়েছেন। ১৯৮১ সালে আততায়ী হামলা চালিয়ে খামেনেয়ীকে হত্যার চেষ্টা করা হয়। সে হামলার পর থেকে তার শরীরের একাংশ প্যারালাইজড। এরপর ২০১৪ সালে প্রোস্টেট ক্যানসারের কারণে তার সার্জারি করা হয়। সাম্প্রতিক বিভিন্ন অনুষ্ঠানে এই ধর্মীয় নেতাকে বেশ দুর্বল দেখা গেছে।

About

Popular Links