Tuesday, June 25, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

জাপানে এক মাসে তিন মন্ত্রীর পদত্যাগ, বিপাকে প্রধানমন্ত্রী

গত জুলাইয়ে জাপানে সাবেক প্রধানমন্ত্রী শিনজো আবের হত্যার পর থেকে প্রধানমন্ত্রী কিশিদার জনপ্রিয়তা কমে গেছে

আপডেট : ২৩ নভেম্বর ২০২২, ০৯:২৩ পিএম

জাপানের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী মিনোরু তেরাদা পদত্যাগ করেছেন। এ নিয়ে দেশটিতে এক মাসেরও কম সময়ের মধ্যে তৃতীয় মন্ত্রীর পদত্যাগের ঘটনা ঘটলো। এতে বিপাকে পড়েছেন প্রধানমন্ত্রী ফুমিও কিশিদা।

বুধবার (২৩ নভেম্বর) বার্তা সংস্থা রয়টার্সের এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

প্রতিবেদনে বলা হয়, সম্প্রতি জাপানের সংবাদমাধ্যমে খবর ছড়িয়েছিল প্রধানমন্ত্রী কিশিদা স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীকে বরখাস্ত করতে পারেন। এরমধ্যেই পদত্যাগ করলেন মিনোরু তেরাদা।

এর আগে এ মাসেই পদত্যাগ করেন জাপানের আইনমন্ত্রী ইয়াশুহিরো আনাশি। ধর্মীয় গোষ্ঠীর সঙ্গে তার সম্পর্কের কারণে পদত্যাগ করেছিলেন তিনি। এছাড়া ২৪ অক্টোবরে পদত্যাগ করেন অর্থনীতি পুনরুজ্জীবন বিষয়ক মন্ত্রী দাইশিরো ইয়ামাগিওয়া। মৃত্যুদণ্ড নিয়ে আপত্তিকর মন্তব্য করে পদত্যাগ করেন আইনমন্ত্রী আনাশি।

রয়টার্স বলছে, একাধিক তহবিল সংক্রান্ত কেলেঙ্কারির জন্য সমালোচনার মুখে পদত্যাগ করেছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী তেরাদা। রবিবার তিনি প্রধানমন্ত্রী কিশিদার কাছে পদত্যাগপত্র জমা দেন।

কিশিদা জানান, তিনি এই পদত্যাগপত্র গ্রহণ করেছেন।

জুলাইয়ে জাপানে সাবেক প্রধানমন্ত্রী শিনজো আবের হত্যার পর থেকে প্রধানমন্ত্রী কিশিদার জনপ্রিয়তা কমে গেছে। সাম্প্রতিক কয়েকটি জনমত জরিপে তার জনসমর্থন নেমে আসতে দেখা গেছে ৩০% এর নিচে।

৫১% মানুষ জানিয়েছেন, অর্থমন্ত্রী দাইশিরো ইয়ামাগিওয়া ও বিচারমন্ত্রী ইয়াসুহিরো হানাশির পদত্যাগের বিষয়টি সঠিকভাবে ব্যবস্থাপনা করতে ব্যর্থ হয়েছেন প্রধানমন্ত্রী।

তেরাদার পদত্যাগের ঘটনায় প্রধানমন্ত্রীর জনপ্রিয়তা আরও কমে যেতে পারে বলে বিশ্লেষকরা মত প্রকাশ করেছেন।

এর আগে, আবের সন্দেহভাজন খুনি জানান, তার মা ইউনিফিকেশন চার্চের কারণে দেউলিয়া হন। তিনি একইসঙ্গে এই চার্চের প্রচারণা করার জন্য আবেকে দায়ী করেন।

এলডিপি পরবর্তীতে স্বীকার করে, তাদের অনেক আইনপ্রণেতার সঙ্গে এই চার্চের সংযোগ রয়েছে। তবে প্রাতিষ্ঠানিকভাবে রাজনৈতিক দলটি কোনোভাবেই এই ধর্মীয় সংগঠনের সঙ্গে যুক্ত নয় বলে তারা দাবি জানায়। এ সব বিতর্কে কিশিদার জনপ্রিয়তার ওপর বড় আঘাত আসে।

সেপ্টেম্বরের শেষে আবের জন্য ব্যয়বহুল ও জাঁকজমকপূর্ণ রাষ্ট্রীয় শেষকৃত্যের আয়োজন করে কিশিদা আরও সমালোচিত হন।

এ অবস্থায় কিশিদার মন্ত্রীসভার তিন গুরুত্বপূর্ণ মন্ত্রী একে একে পদত্যাগ তার জন্য আরেকটি বড় ধাক্কা। ফলে যে কোনো রাজনৈতিক এজেন্ডা বাস্তবায়ন করা এখন কিশিদার জন্য কঠিন হয়ে পড়বে।

গত ২৪ অক্টোবর থেকে এখন পর্যন্ত সময়ের মধ্যে এই তিন মন্ত্রীর পদত্যাগের বিষয়ে জিজ্ঞেস করা হলে কিশিদা জানান, তিনি ক্ষমা চাইবেন।

তিনি জানান, আমি অনেকটাই দায় বোধ করছি। অতি দ্রুতই তেরেদার উত্তরসূরির নাম ঘোষণা করার পরিকল্পনা রয়েছে বলে জানান তিনি। 

জাপানের এনএইচকে টিভি জানিয়েছে, সাবেক পররাষ্ট্রমন্ত্রী তাকেকি মাসুমোতোকে নতুন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী করা হতে পারে।

About

Popular Links