Sunday, May 26, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

উত্তর কোরিয়ার ক্ষেপণাস্ত্র নিক্ষেপ, জাপানে সাইরেন

জাপানের একেবারের উত্তরের দ্বীপ হোক্কাইডোতে মিসাইল অ্যালার্ম বেজে ওঠে। দ্রুত সমস্ত নাগরিককে বাড়ি থেকে বেরিয়ে আশ্রয়শিবিরে চলে যেতে বলা হয়

আপডেট : ১৩ এপ্রিল ২০২৩, ১১:০৯ এএম

আবারও ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র উৎক্ষেপণ করেছে উত্তর কোরিয়া। এটি কোরীয় উপদ্বীপ এবং জাপানের মধ্যবর্তী অঞ্চলে আছড়ে পড়েছে। এ ঘটনার জেরে জাপানের হোক্কাইডোতে অ্যালার্ম বেজে ওঠে। ক্ষেপণাস্ত্রটি জাপানের দ্বীপ হোক্কাইডোতে আঘাত হানার আশঙ্কা তৈরি করেছিল। এর তীব্র প্রতিবাদ জানিয়েছে জাপান।

বৃহস্পতিবার (১৩ এপ্রিল) স্থানীয় সময় সকাল ৮টা নাগাদ জাপানের একেবারের উত্তরের দ্বীপ হোক্কাইডোতে মিসাইল অ্যালার্ম বেজে ওঠে। দ্রুত সমস্ত নাগরিককে বাড়ি থেকে বেরিয়ে আশ্রয়শিবিরে চলে যেতে বলা হয়। তবে অ্যালার্ম বেশিক্ষণ স্থায়ী হয়নি। কারণ, মিসাইলটি শেষপর্যন্ত সমুদ্রের ওপর ভেঙে পড়ে।

জাপান এবং দক্ষিণ কোরিয়ার সেনা জানিয়েছে, মিসাইলটি সম্ভবত ব্যালেস্টিক। প্রোজেকটাইল মিসাইল। অর্থাৎ, নির্দিষ্ট লক্ষ্যে এগিয়ে যেতে পারে মিসাইলটি। ফলে প্রাথমিকভাবে মনে হয়েছিল, মিসাইলটি জাপানের দ্বীপের ওপর দিয়ে যাবে। কিন্তু পরে মিসাইলটি ভেঙে পড়ে।

গত কিছু দিনে একের পর এক মিসাইল জাপান এবং দক্ষিণ কোরিয়ার মধ্যবর্তী সমুদ্রে নিক্ষেপ করেছে উত্তর কোরিয়া। সম্প্রতি উত্তর কোরিয়ার সরকারি সংবাদ সংস্থা জানিয়েছে, দেশের প্রধান কিম জং উন বলেছেন, উত্তর কোরিয়াকে যুদ্ধের জন্য আরো বেশি প্রস্তুত থাকতে হবে। এবং সে কারণে, অস্ত্রভাণ্ডার তৈরির কথাও বলেছেন তিনি।

উত্তর কোরিয়ার বক্তব্য, যুক্তরাষ্ট্রকে সঙ্গে নিয়ে দক্ষিণ কোরিয়া এবং জাপান ওই কোরিয়ান পেনিনসুলা অঞ্চলে উত্তর কোরিয়ার বিরুদ্ধে জোট বাঁধছে। সম্প্রতি দক্ষিণ কোরিয়া এবং যুক্তরাষ্ট্র একটি যৌথ সামরিক মহড়ায় অংশ নিয়েছিল। তারপর মিসাইল পরীক্ষার বহর আরো বাড়িয়ে দিয়েছেন কিম। এর আগেও তাদের ছোঁড়া প্রোজেক্টাইল মিসাইলের জন্য জাপানে মিসাইল অ্যালার্ম বেজেছিল।

About

Popular Links