Saturday, May 25, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

ছবি চুরির অভিযোগ: ইতালির মন্ত্রীর পদত্যাগ

চুরির অভিযোগ প্রত্যাখান করে তিনি জানান, যে চিত্রকর্ম চুরির অভিযোগ তার বিরুদ্ধে করা হচ্ছে সেটি নকল চিত্রকর্ম, কিন্তু তার কাছে রয়েছে আসলটি

আপডেট : ০৩ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ০৯:০৩ পিএম

পুরনো একটি চিত্রকর্ম চুরি ও তাতে পরিবর্তন আনার অভিযোগে পদত্যাগ করেছেন ইতালির জুনিয়র সংস্কৃতিমন্ত্রী ভিত্তোরিও সাগারবি। তবে এই অভিযোগ অস্বীকার করেছেন তিনি।

শনিবার (৩ জানুয়ারি) ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসির এক প্রতিবেদনে এ তথ্য উঠে এসেছে।

সারবি একজন শিল্প সমালোচক হিসেবেও পরিচিত। তার বিরুদ্ধে সতের শতকের একটি পেইন্টিং চুরি এবং তাতে পরিবর্তন আনার অভিযোগ তোলা হয়েছে। এ অভিযোগের তদন্ত করছেন প্রসিকিউটররা।

যদিও ভিত্তোরিও সারবি বলেছেন, “স্বার্থান্বেষী সংঘাত এড়াতেই পদত্যাগ করেছেন।”

জানা গেছে, “দ্য ক্যাপচার অব সেন্ট পিটার” নামের চিত্রকর্মটি ২০১৩ সালে চুরি হয়ে যায়। চিত্রকর্মটি তৈরি করেছিলেন রুটিলিও মানেত্তি। তিনি বারোক মাস্টার কারাভাজিওর অনুসারী ছিলেন। তার আঁকা এই চিত্রকর্মটি উত্তর ইতালির পিডমন্ট অঞ্চলের একটি দুর্গে প্রদর্শিত ছিল।

সারবির বিরুদ্ধে আনা অভিযোগে বলা হয়েছে, চিত্রকর্মটির উৎস গোপন করতে সেটির ওপরে একটি মোমবাতি যোগ করেছেন তিনি।

তবে সারবি বলছেন, যে চিত্রকর্ম চুরির অভিযোগ তার বিরুদ্ধে করা হচ্ছে সেটি নকল চিত্রকর্ম, কিন্তু তার কাছে রয়েছে আসলটি। ২০ বছরেরও বেশি সময় আগে তার মায়ের কেনা একটি ভিলা পুনরুদ্ধার করার সময় এটি খুঁজে পেয়েছিলেন তিনি।

ইতালীয় টেলিভিশন উপস্থাপক রাইয়ের অনুষ্ঠানে এই অভিযোগ তোলা হয়। যিনি চিত্রকর্মটি চুরির অভিযোগ করেছিলেন তিনি বলেছিলেন, ক্যানভাসটি ২০১৩ সালে ফ্রেম থেকে কেটে ফেলা হয়েছিল।

তিনি বলেন, “সারবির এক বন্ধু এর আগে তার দুর্গ পরিদর্শন করেছিলেন। তখন চিত্রকর্মটি কেনার আগ্রহ প্রকাশ করেছিলেন তিনি।”

ওই অনুষ্ঠানে আরও বলা হয়, “সংস্কৃতিমন্ত্রীর আরেক বন্ধু পরে এক পুনরুদ্ধারকারীকে ‘দ্য ক্যাপচার অব সেন্ট পিটার’-এর একটি ক্ষতিগ্রস্ত হওয়া চিত্রকর্ম দিয়েছে।”

২০১৩ সালে পিডমন্ট দুর্গের ফ্রেমের বাইরে কাটা ক্যানভাসের টুকরোটির মতো একই আকারের গর্ত ছিল ওই চিত্রকর্মে। ২০২১ সালে পুনরুদ্ধার করা চিত্রকর্মটি প্রদর্শনের জন্য রেখেছিলেন সারবি। তখন এর ওপরের কোণে একটি মোমবাতি যুক্ত করা ছিল।

ফরাসি শিল্পী ভ্যালেন্টিন ডি বোলোনের একটি চিত্রকর্মের জন্যও জুনিয়র এই শিল্পমন্ত্রীর বিরুদ্ধে অভিযোগ আনা হয়েছে। ওই চিত্রকর্মটির মূল্য ৫০ লাখ ইউরো। মন্টেকার্লো থেকে এটি বাজেয়াপ্ত করেছিল পুলিশ ।

About

Popular Links