Thursday, May 30, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

ইরানের ওপর ইসরায়েলের হামলা চান না বাইডেন

শনিবার ইসরায়েলের অভ্যন্তরে ড্রোন ও ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালায় ইরান, এর পর থেকেই ওই অঞ্চলে উত্তেজনা বিরাজ করছে

আপডেট : ১৫ এপ্রিল ২০২৪, ০৫:৫৫ পিএম

ইরানের ওপর ইসরায়েলের পাল্টা হামলা চান না মার্কিন প্রসিডেন্ট জো বাইডেন। এ বিষয়ে তেল আবিবকে সতর্ক করেছেন তিনি।

শনিবার ইসরায়েলের অভ্যন্তরে ড্রোন ও ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালায় ইরান। এর পর থেকেই ওই অঞ্চলে উত্তেজনা বিরাজ করছে। তবে সংঘাত এড়াতে ব্যাপক কূটনীতিক তৎপরতা নিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র।

বাইডেন প্রশাসন বৃহত্তর সঙ্কট এড়াতে আপাতত উত্তেজনা প্রশমন করতে চায়৷ এজন্য ইসরায়েলকে পাল্টা হামলা না চালানোর আহ্বান জানান মার্কিন প্রেসিডেন্ট।

ইসরায়েলি প্রধানমন্ত্রী বেনিয়ামিন নেতানিয়াহুকে স্পষ্টভাবে বাইডেন জানিয়ে দিয়েছেন, তেল আবিব কোনো হামলা চালালে যুক্তরাষ্ট্র তাদের পাশে থাকবে না। 

মধ্যপ্রাচ্যে বড় সঙ্কটের শঙ্কা প্রকাশ করেছেন জাতিসংঘের মহাসচিব আন্তোনিয়ো গুতেরেস।

রবিবার নিরাপত্তা পরিষদের জরুরি এক বৈঠকে উত্তেজনা কমানোর পক্ষে অবস্থান জানান তিনি। বৈঠকে ইরানের পদক্ষেপের নিন্দা জানান জাতিসংঘে মার্কিন উপ-রাষ্ট্রদূত রবার্ট উড।

তিনি সতর্ক করে বলেন, ‘‘ইরান ও তার ‘প্রক্সি' বা মদতপূষ্ট শক্তি যদি যুক্তরাষ্ট্র বা ইসরায়েলের বিরুদ্ধে আরও পদক্ষেপ নেয়, সে ক্ষেত্রে ইরানকেই তার দায় নিতে হবে৷”

এদিকে ইসরায়েল ও ইরান পরস্পরকে দোষারোপ করে একে অপরের উপর জাতিসংঘের নিষেধাজ্ঞা চাপানোর ডাক দিয়েছে৷

উত্তেজনাপূর্ণ এ সময়ে আঞ্চলিক শক্তিগুলোর সঙ্গে সমন্বয় বাড়াতে মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী অ্যান্টনি ব্লিংকেন ও প্রতিরক্ষামন্ত্রী লয়েড অস্টিন সৌদি আরব, তুরস্ক, মিশর ও জর্ডানে নিজেদের সতীর্থদের সঙ্গে যোগাযোগ রেখে চলেছেন৷ আরও সংঘাতের বদলে কূটনৈতিক সমন্বয়ের মাধ্যমে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রাখার চেষ্টা চালাচ্ছে বাইডেন প্রশাসন।

এদিকে একদিকে হামলার প্রতিবাদে মার্কিনিদের সংহতি অন্যদিকে তাদের সতর্কতায় দোটানায় পড়েছে ইসরায়েল। 

রবিবার (১৪ এপ্রিল) দেশের মন্ত্রিসভার যুদ্ধকালীন পরিষদের পাঁচ সদস্য ইরানের বিরুদ্ধে পাল্টা পদক্ষেপের পক্ষে অবস্থান নিলেও এমন হামলার দিনক্ষণ ও মাত্রার বিষয়ে ঐকমত্যে পৌঁছতে পারেনি৷ 

মন্ত্রিসভার সদস্য হিসেবে বিরোধী নেতা বেনি গানৎস ও প্রতিরক্ষামন্ত্রী ইওয়াভ গালান্ট ইরানের বিরুদ্ধে পদক্ষেপের ক্ষেত্রে একাধিক দেশের এক আঞ্চলিক কোয়ালিশন গঠনের পক্ষে অবস্থান প্রকাশ করেন৷

ইরান অবশ্য পাল্টা হামলার প্রস্তুতি নিয়ে রেখেছে বলে ঘোষণা দিয়ে দিয়েছে। দেশটির সেনাবাহিনীর চিফ অব স্টাফ মেজর জেনারেল মোহাম্মাদ বাগেরি টেলিভিশনে বলেন, ‘‘ইসরায়েল পাল্টা হামলা চালালে ইরান আরও বড় আকারের হামলা চালাবে৷”

এ হামলায় ওয়াশিংটন মদত দিলে মার্কিন সামরিক ঘাঁটিগুলোর ওপরেও হামলার হুমকি দেন তিনি৷

পররাষ্ট্রমন্ত্রী হোসেইন আমির আবদোল্লাহিয়ান বলেন, ‘‘ইরান ৭২ ঘণ্টা আগেই যুক্তরাষ্ট্রকে ‘আত্মরক্ষার স্বার্থে সীমিত’ হামলা সম্পর্কে সতর্ক করে দিয়েছিল৷”

যুক্তরাষ্ট্র অবশ্য এমন দাবি অস্বীকার করেছে৷

তবে তুরস্ক, জর্ডান ও ইরাকের কর্মকর্তারা ইরানের আগাম সতর্কবার্তার কথা স্বীকার করেছেন৷

About

Popular Links