Sunday, May 26, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

বৃত্তি পেলেন পাবনা বিশ্ববিদ্যালয়ের অসচ্ছল ও মেধাবী শিক্ষার্থীরা

শিক্ষার্থী সহায়তা তহবিল থেকে বৃত্তি পেয়েছেন পাবনা বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের ৪২ জন অসচ্ছল এবং মেধাবী শিক্ষার্থী

আপডেট : ০৯ আগস্ট ২০২৩, ০৪:৪২ পিএম

গুচ্ছ ভর্তি পরীক্ষার প্রাপ্ত আয় থেকে পাবনা বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে অসচ্ছল ও মেধাবী ছাত্রছাত্রীদের জন্য রয়েছে ‘‘শিক্ষার্থী সহায়তা তহবিল’’। এই তহবিলে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. হাফিজা খাতুন ব্যক্তিগতভাবে পাঁচ লাখ টাকা অনুদান দিয়েছেন। 

বুধবার (৯ আগস্ট) বিশ্ববিদ্যালয়ের ২১টি বিভাগের ৪২ জন অসচ্ছল ও মেধাবী শিক্ষার্থীকে পাঁচ হাজার করে টাকা বৃত্তি দেওয়া হয় শিক্ষার্থী সহায়তা তহবিল থেকে। এ উপলক্ষে সকালে ভার্চুয়াল ক্লাসরুমে এক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। অনুষ্ঠানের শুরুতে ১৫ আগস্টের শহিদদের স্মরণে এক মিনিট নীরবতা পালন করা হয়। 

বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র উপদেষ্টা  ড. মো. নাজমুল হোসেনের সঞ্চালনায়  প্রধান অতিথি অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন উপাচার্য অধ্যাপক ড. হাফিজা খাতুন।

শিক্ষার্থীদের মেধাবী, শ্রেষ্ঠ ও বীর আখ্যায়িত করে উপাচার্য বলেন, “তোমরা মনের জোরে এগিয়ে যাবে। নজরুলের কবিতার মতো মাথা উঁচু করে বড় হবে। বাধা যেন হীনমন্যতার কারণ না হয়ে দাঁড়ায়। বীরের মতো  সামনের দিকে এগিয়ে গেলেই আলো দেখতে পাবে। শ্রেষ্ঠ সন্তানদের এগিয়ে নিতে আমরা সর্বাত্বক সহযোগিতা, উৎসাহ দিয়ে যাব।” 

অনুষ্ঠানের বিশেষ অতিথি উপ-উপাচার্য এস এম মোস্তফা কামাল খান বলেন, “আমাদের তরুণ শিক্ষকরা যে স্বপ্ন তোমাদের মাঝে ছড়িয়ে দিচ্ছেন তা কাজে লাগাতে হবে। আমাদের স্বীকৃতিকে কাজে লাগাতে হবে। জীবনে প্রতিষ্ঠিত হওয়ার জন্য টাকা কোনো বাধা নয়। ইচ্ছাশক্তি, চেষ্টা, প্রয়াস মানুষকে বড় করে।  তোমাদের হাত ধরে বিশ্ববিদ্যালয় তথা দেশ এগিয়ে যাবে।”

আরেক বিশেষ অতিথি কোষাধ্যক্ষ ড. কে এম সালাহ উদ্দীন বলেন, “আত্মবিশ্বাস, মেধা ও আর্থিক সক্ষমতা থাকলে মানুষ সফল হতে পারে। সে জন্য নিজের লক্ষ্য, উদ্দেশ্য ঠিক করে দৃঢ় প্রতিজ্ঞাবদ্ধ হয়ে আগামীর পথে এগিয়ে যেতে হবে। অদম্য মেধাবীরাই  আগামীর বাংলাদেশ গঠনে অগ্রণী ভূমিকা পালন করবে।”

অনুষ্ঠানে বৃত্তিপ্রাপ্ত শিক্ষার্থীদের পক্ষ থেকে বক্তব্য রাখেন আতিকুল ইসলাম ও নুসরাত ইয়াসমিন ইভা।

অনুষ্ঠানে বিশ্ববিদ্যালয়ের ৪২ জন শিক্ষার্থী পাঁচ হাজার টাকা  করে এককালীন বৃত্তি গ্রহণ করেন। এতে বিভিন্ন অনুষদের ডিন, রেজিস্ট্রার বিজন কুমার ব্রহ্ম, প্রক্টর কামাল হোসেন, বিভাগীয় চেয়ারম্যানসহ শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা উপস্থিত ছিলেন। 

এই তহবিল থেকে গত বছরের ২৬ আগস্ট শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি এক শিক্ষার্থীর কৃত্রিম পা প্রতিস্থাপনের জন্য এক লাখ টাকা অনুদান দেন।

About

Popular Links