Saturday, May 25, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

মাইক্লো’র নতুন আউটলেট উদ্বোধন করলেন তাহসান

ঢাকা ও নরসিংদীতে একযোগে আটটি শোরুম উদ্বোধনের মাধ্যমে দেশের ফ্যাশন বাজারে যাত্রার মাধ্যমে চমক সৃষ্টি করে নতুন ফ্যাশন ব্র্যান্ড ‘মাইক্লো বাংলাদেশ’

আপডেট : ২৮ জানুয়ারি ২০২৪, ০৪:৩৫ পিএম

“মাইক্লো” একটি তৈরি পোশাকের ব্র্যান্ড। যা জাপানি লাইফস্টাইল, সরলতা এবং প্রযুক্তি-অনুরাগ দ্বারা অনুপ্রাণিত। গ্রাহকদের ক্রয়ক্ষমতার মধ্যে মানসম্মত ও পছন্দের পোশাক দেওয়ার লক্ষ্যে কাজ করে যাচ্ছে “মাইক্লো বাংলাদেশ”।

শনিবার (২৭ জানুয়ারি) রাজধানীর বেইলি রোডে মাইক্লো বাংলাদেশের নবম আউটলেট উদ্বোধন করেন মাইক্লোর নতুন মুখ জনপ্রিয় কণ্ঠশিল্পী ও অভিনেতা তাহসান খান। 

এর আগে, ঢাকা ও নরসিংদীতে একযোগে আটটি শোরুম উদ্বোধনের মাধ্যমে দেশের ফ্যাশন বাজারে যাত্রার মাধ্যমে চমক সৃষ্টি করে নতুন ফ্যাশন ব্র্যান্ড “মাইক্লো বাংলাদেশ”।

তাহসান খান বলেন, “এখন থেকে আমাকে নিয়মিত দেখতে পাবেন তৈরি পোশাকের ব্র্যান্ড মাইক্লো বাংলাদেশের সঙ্গে। আশা করি, ভালো কিছু হবে এবং নতুন চমক থাকছে।”

অনুষ্ঠানে মাইক্লোর ক্রিয়েটিভ ডিজাইন ইনোভেশন অ্যান্ড মার্কেটিং পরিচালক বাবু আরিফ বলেন, “এই প্রতিষ্ঠানটির লক্ষ্য হলো আন্তর্জাতিক মানের পোশাক এবং বিক্রয় সেবা প্রদানের পাশাপাশি বাংলাদেশের দ্রুততম বর্ধনশীল ব্র্যান্ড হিসেবে নিজেদের প্রতিষ্ঠিত করা। জাপানি পোশাক, লাইফস্টাইল ও কোয়ালিটি থেকে অনুপ্রাণিত হওয়ায় মাইক্লো জাপানি কোয়ালিটিকেই অনুসরণ করছে। একইভাবে পোশাক তৈরি ও গ্রাহকদের হাতে পৌঁছে দেওয়ার প্রতিটি ধাপে সর্বোচ্চ পরিবেশ সুরক্ষার বিষয়টিও নিশ্চিত করার চেষ্টা অব্যাহত থাকবে।”

তিনি বলেন, “আমি বিশ্বাস করি, দাম, মান ও চাহিদা বিবেচনায় সর্বসাধারণের পোশাকের প্রিয় ব্র্যান্ডই নয়, বরং ফ্যাশনে নিত্যদিনের সঙ্গী হয়ে উঠবে মাইক্লো।”

অন্যদিকে, মাইক্লোতে আন্তর্জাতিক মানের বিক্রয় সেবা নিশ্চিত করতে চান প্রতিষ্ঠানটির মার্চেন্ডাইজিং, সেলস, হিউম্যান রিসোর্স ও স্টোর অপারেশন পরিচালক এ এইচ এম আরিফুল কবির। তিনি বলেন, “আমাদের পরিকল্পনা রয়েছে, ভবিষ্যতে বাংলাদেশের বাজারে পাশাপাশি আন্তর্জাতিক বাজারেও একটি শক্তিশালী ব্র্যান্ড হিসেবে মাইক্লো’কে প্রতিষ্ঠিত করা।”

বাংলাদেশে মাইক্লোর যাত্রাকে পোশাক ব্র্যান্ডের নবজাগরণ বলে মন্তব্য করেছেন মাইক্লোর গ্লোবাল বিজনেস পরিচালক তাদাহিরো ইয়ামাগুচি। উদ্বোধন উপলক্ষে দেওয়া এক বার্তায় তিনি বলেন, “আমরা মাইক্লো শুধু একটি ব্র্যান্ড চালু করছি না, বরং এমন একটি নবজাগরণ শুরু করছি; যা ব্যক্তিত্ব, সৃজনশীলতা এবং স্থায়ীভাবে সামাজিক দায়বদ্ধতাকে ধারণ করে।”

জানা গেছে, উদ্বোধন উপলক্ষে ক্রেতাদের জন্য সপ্তাহব্যাপী আকর্ষণীয় পুরস্কারের পাশাপাশি রয়েছে সব পণ্যের ওপর বিশেষ মূল্যছাড়। শিগগিরই আরও কিছু শাখা চালুর মাধ্যমে গ্রাহকদের দোরগোড়ায় সেবা পৌঁছে দেওয়ায় প্রতিশ্রুতিবদ্ধ মাইক্লো বাংলাদেশ।

About

Popular Links