• বুধবার, নভেম্বর ১৩, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ০৭:৩৮ রাত

সাগর তলে বিয়ে করলেন শ্রীলংকান দম্পতি

  • প্রকাশিত ১২:২৯ দুপুর অক্টোবর ২২, ২০১৮
পানির নীচে বিয়ে
শ্রীলংকান সদ্য বিবাহিত এক দম্পতি ভারত মহাসাগরের নিচে বিয়ে করছেন। ছবি: সৌজন্যে।

পানির নিচে বিয়ের কথা চিন্তা করলেও পেরেরার জন্য বিষয়টি ছিল দুঃসাহসিক, কারণ তিনি সাঁতার জানতেন না

বিয়েকে স্মরণীয় করে রাখতে মানুষ নানান রকমের উদ্ভুত-উদ্ভট কাজ করে থাকেন। কেউ পাহাড়ের চূড়ায় কিংবা কেউ স্থল থেকে হাজার ফুট ওপরে আকাশে বিয়ে করেছেন। তেমনি অদ্ভুত এক কান্ড করলেন শ্রীলংকান সদ্য বিবাহিত এক দম্পতি। বিয়ে করলেন ভারত মহাসাগরের নিচে।

এ প্রসঙ্গে বিবিসিকে নববধূ হাসিনি এরান্দি পেরেরা বলেন, "আমরা চেয়েছি বিয়ে উপলক্ষ্যে ভিন্ন কিছু করতে। আমার স্বামী একজন পেশাদার ডুবুরি। আমি  এমন একটা কিছু করতে চেয়েছি, তার কাজের সাথে যার মিল রয়েছে। তখন এই আইডিয়াটি মাথায় আসে।"

 

পানির নিচে বিয়ের কথা চিন্তা করলেও পেরেরার জন্য বিষয়টি ছিল দুঃসাহসিক, কারণ তিনি সাঁতার জানতেন না।   পেরেরা বলেন, "আমি সাঁতার জানি না। এটা ছিল আমার প্রথম ডাইভ। খুব ভয় পেয়েছিলাম। কিন্ত আমার স্বামীর ভরসায় সেই ভয় কেটে যায়। এভাবে বিয়ের ব্যাপারে আমার মায়ের আপত্তি ছিলো। কিন্ত বাবা বললেন, সত্যি যদি চাও তাহলে করে ফেল।" 

"আমার স্বামী পাশে ছিলেন বলেই তারা শেষে রাজি হন। একটি সুইমিংপুলে আমি দুদিন ধরে প্রশিক্ষণ নেই। তারপরই সাগরে ডুব দেই। এর সৌন্দর্য ভাষায় প্রকাশের নয়, চমৎকার সব মাছ চারিদিকে। সেই সম্পূর্ণ ভিন্ন এক এক জগত।" 

পানির নিচে প্রথমবারের মতো ডুব দেয়ার অভিজ্ঞতা জানতে চাইলে পেরেরা বলেন, "আমিতো পানির নিচ থেকে উঠতেই চাচ্ছিলাম না। এই অভিজ্ঞতা কখনই ভোলা যাবে না। আমার বিয়ের আংটিটি আমার ভাই একটি নারকেলের মালার মধ্যে রেখে দিয়েছিলো। সাগর তলেই আমরা আংটি বদল করি। অনুষ্ঠানটি ছিল সারা জীবন মনে রাখার মতো ঘটনা।"