• রবিবার, মার্চ ২৪, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ১১:০১ রাত

পৃথিবীর সবচেয়ে দামি বিবাহ বিচ্ছেদ

  • প্রকাশিত ০৪:৩৩ বিকেল জানুয়ারী ১১, ২০১৯
jeff bezos
জেফ বেজোস ও ম্যাকেঞ্জি বেজোস। ছবি- রয়টার্স

এই বিচ্ছেদ সম্পন্ন হলে নিজের প্রাক্তন স্ত্রীকে আনুমানিক ৪.২ লক্ষ কোটি টাকারও বেশি দিতে হবে আমাজন মালিককে

পৃথিবীর ধনীতম ব্যক্তি এবং আমাজনের মালিক জেফ বেজোস তার ২৫ বছরের সঙ্গী ম্যাকেঞ্জির সঙ্গে নিজের বিচ্ছেদের কথা জানিয়েছিলেন টুইটারে। আর এর ফলে তা-ই হয়ে দাঁড়াচ্ছে পৃথিবীর সব থেকে দামি বিবাহ বিচ্ছেদ। কারণ এই বিচ্ছেদ সম্পন্ন হলে নিজের প্রাক্তন স্ত্রীকে আনুমানিক ৪.২ লক্ষ কোটি টাকারও বেশি দিতে হবে আমাজন মালিককে। ভরনপোষণের হিসেবে এই পরিমাণ টাকা দেওয়ার নজির এখনও পাওয়া যায়নি পৃথিবীর ইতিহাসে।

২০১৭ সালেই পৃথিবীর ধনীতম ব্যক্তি হয়েছিলেন জেফ। এখন তাঁর সম্পত্তির পরিমান ১৩৭ বিলিয়ন ডলারেরও বেশি। বিবাহ বিচ্ছেদের ফলে এই বিপুল ধনরাশির প্রায় অর্ধেক পরিমাণ টাকা তাঁকে দিতে হবে ম্যাকেঞ্জি বেজোসকে। 

২৫ বছর আগে বিয়ে করেছিলেন জেফ এবং ম্যাকেঞ্জি। আর ঠিক পঁচিশ বছর আগে ১৯৯৪ সালেই অনলাইন-রিটেল সংস্থা আমাজন তৈরি করেছিলেন জেফ। আবার নিজেদের বিয়ের পঁচিশতম বছরেই মাইক্রোসফট এবং অ্যাপলকে হারিয়ে পৃথিবীর ধনীতম কোম্পানি হিসেবে উঠে আসে আমাজন। অর্থাৎ, যে সময়কালে ধনকুবের হয়ে উঠছেন জেফ, সেই সময় একসঙ্গেই ছিলেন জেফ এবং ম্যাকেঞ্জি। তাই জেফের অর্জিত সম্পত্তিতে ম্যাকেঞ্জির আইনমাফিক অংশীদারিত্ব আছে এবং সেই সম্পত্তি প্রায় সমান দু’ভাগে ভাগ হবে, এমনটাই আইন যুক্তরাষ্ট্রে। আর তা হলে এই বিচ্ছেদের ফলে পৃথিবীর ধনীতম মহিলা হয়ে যাবেন ম্যাকেঞ্জি, যদিও ধনীতম ব্যক্তির মুকুট হারাবেন জেফ বেজোস। ফলে আবার পৃথিবীর ধনীতম ব্যক্তি হয়ে যাবেন মাইক্রোসফট প্রধান বিল গেটস। অন্য দিকে ফেসবুক প্রধান মার্ক জাকারবার্গ এবং টেসলা প্রধান এলন মাস্কের থেকেও বেশি অর্থের মালিক হয়ে যাবেন ম্যাকেঞ্জি বেজোস।