• রবিবার, এপ্রিল ০৫, ২০২০
  • সর্বশেষ আপডেট : ১১:০৪ রাত

ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করবে যুক্তফ্রন্ট ও গণফোরাম

  • প্রকাশিত ০২:৪৯ রাত আগস্ট ২৯, ২০১৮
একিউএম বদরুদ্দোজা চৌধুরী ও  ড.কামাল হোসেন
ড.কামাল হোসেন (বামে) ও একিউএম বদরুদ্দোজা চৌধুরী (ডানে)।

আসন্ন নির্বাচনে গণফোরাম বা ঐক্যজোট অংশ নেবে কিনা সে বিষয়ে এখনও কিছু জানানো হয়নি।

একাদশ তম সাংসদীয় নির্বাচনকে সামনে রেখে ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করার কথা জানিয়েছে যুক্তফ্রন্ট ও গণফোরাম। মঙ্গলবার (২৮ আগস্ট) রাতে সাবেক প্রেসিডেন্ট ও বিকল্প ধারার সভাপতি একিউএম বদরুদ্দোজা চৌধুরী ও গণফোরামের সভাপতি ড.কামাল হোসেন এক আনুষ্ঠানিক ঘোষণায় বিষয়টি সম্পর্কে জানিয়েছেন।

মঙ্গলবার রাতে ড. কামাল হোসেনের বেইলি রোডের বাসায় এক বৈঠক শেষে এই সিদ্ধান্তের কথা জানানো হয়। বৈঠক শেষে যুক্তফ্রন্ট ও বিকল্পধারা বাংলাদেশের সভাপিত বদরুদ্দোজা চৌধুরী বলেন, “ঐক্যবদ্ধ কর্মসূচী এবং আমাদের ভবিষ্যত পরিকল্পনা সম্পর্কে জানানোর লক্ষ্যে একটি সাব কমিটি গঠণ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছি আমরা।”

তিনি আরও জানান, আগামী ২২ সেপ্টেম্বর একটি অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হবে, সেখানে যুক্তফ্রন্টের সকল সদস্য দল উপস্থিত থাকবে। 

মঙ্গলবার রাত ৮টার দিকে বদরুদ্দোজা চৌধুরীসহ যুক্তফ্রন্ট নেতারা কামাল হোসেনের বাসায় পৌঁছান। এরপর বৈঠক শুরু হয়ে তা শেষ হয় রাত ৯টা ৫০ মিনিট নাগাদ। উপস্থিতদের মধ্যে ছিলেন নাগরিক ঐক্যের মাহমুদুর রহমান মান্না, বিকল্পধারার সাধারণ সম্পাদক আব্দুল মান্নান, গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা জাফরুল্লাহ চৌধুরী এবং জাসদের সভাপতি আসম আব্দুর রব।

বৈঠক শেষে জাফরুল্লাহ চৌধুরী সাংবাদিকদের জানান, তারা আসন্ন নির্বাচনে অংশগ্রহণ করতে আগ্রহী, কিন্তু নির্বাচন নিরপেক্ষ ও রাজনৈতিক নিয়ম অনুসারে হতে হবে। তিনি বলেন, “আমরা ক্ষমতাসীন দলকে অন্ধের মতো অনুসরণ করবো না।”

বৈঠকে অংশগ্রহণকারী একাধিক নেতা জানান, বিএনপিকে এই ঐক্যজোটে আনার বিষয়ে কোনও আলোচনা হয়নি। এ ছাড়াও জানা গেছে, বৈঠকে যুক্তফ্রন্টের তরফ থেকে ড. কামাল হোসেনকে সাত  দফা দাবি সম্বলিত একটি প্রস্তাব দেওয়া হয়েছে। এই  সাত  দফা দাবি প্রস্তাবের সঙ্গে রাজনৈতিক, বিচার ব্যবস্থা, গণতন্ত্র, নিরপেক্ষ নির্বাচন, অধিকার ইত্যাদি বেশ কিছু সংখ্যক ইস্যু জড়িত রয়েছে।

তবে আসন্ন নির্বাচনে গণফোরাম বা ঐক্যজোট অংশ নেবে কিনা সে বিষয়ে এখনও কিছু জানানো হয়নি।