• রবিবার, ডিসেম্বর ১৫, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ১০:৫৭ রাত

বিএনপি: কোনো যুদ্ধাপরাধীকে ‘ধানের শীষ’ ব্যবহারের অনুমতি দেওয়া হবে না

  • প্রকাশিত ০৪:৪২ বিকেল নভেম্বর ২৯, ২০১৮
Nazrul Islam khan
বিএনপি'র স্থায়ী কমিটির সদস্য সৈয়দ নজরুল ইসলাম খান। ফাইল ছবি

নজরুল ইসলাম খান দাবি করেন, জামায়াতে ইসলামী দলে কয়েকজন মুক্তিযোদ্ধাও আছেন।

একাদশ সংসদ নির্বাচনে দলের নির্বাচনী প্রতীক ‘ধানের শীষ’ নিয়ে কোনো যুদ্ধাপরাধীকে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করার অনুমতি দেবে না বলে জানিয়েছে বিএনপি।

দলের স্থায়ী কমিটির সদস্য নজরুল ইসলাম খান বলেন, “আমি আপনাদের নিশ্চয়তা দিতে পারি, কোনো যুদ্ধাপরাধীকে আমাদের নির্বাচনী প্রতীক ‘ধানের শীষ’ ব্যবহার করার অনুমতি দেওয়া হবে না।”

বৃহস্পতিবার (২৯ নভেম্বর) নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ কথা বলেন। খবর- ইউএনবি’র।

বিএনপির প্রতীক নিয়ে নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করার জন্য কয়েকজন জামায়াত নেতা মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছিলেন। এবিষয়ে দৃষ্টি আকর্ষণ করা হলে নজরুল বলেন, “যারা যুদ্ধাপরাধী নয় তারা আমাদের প্রতীক ব্যবহার করলে সমস্যা কোথায়?”

তিনি দাবি করেন, জামায়াতে ইসলামী দলে কয়েকজন মুক্তিযোদ্ধাও আছেন।

এদিকে জামায়াত সূত্র জানায়, তাদের ২৪ জন নেতা জাতীয় নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করার জন্য বিএনপির নির্বাচনী প্রতীক নিয়ে বিভিন্ন জেলার রিটার্নিং কর্মকর্তাদের কাছে মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন।

এছাড়া জামায়াতের কয়েকজন নেতা বিভিন্ন আসন থেকে স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করার জন্য মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন।

জামায়াতকে কয়টি আসন দেয়া হচ্ছে, এমন প্রশ্নের জবাবে নজরুল ইসলাম খান কূটনৈতিকভাবে বলেন, জামায়াতের সঙ্গে তারা কোনো আসন ভাগাভাগি করবেন না। কারণ নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করা জন্য তাদের দল ‘ধানের শীষ’ প্রতীক দিয়ে প্রার্থীদের মনোনয়ন দিয়েছে।