• শুক্রবার, ডিসেম্বর ১৩, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ১০:৫৬ রাত

জামিনে মুক্তিতে বাধা নেই এমপি হারুনের

  • প্রকাশিত ১১:৫৪ সকাল অক্টোবর ৩০, ২০১৯
এমপি হারুনুর রশিদ
চাঁপাইনবাবগঞ্জ-৩ আসনের এমপি হারুনুর রশিদ। ফাইল ছবি। ইউএনবি

এরআগে ২৮ অক্টোবর এ মামলায় বিএনপির যুগ্ম মহাসচিব ও সংসদ সদস্য হারুন অর রশিদকে ৬ মাসের জামিন দেন বিচারপতি শওকত হোসেনের হাইকোর্ট বেঞ্চ

দুর্নীতির মামলায় পাঁচ বছরের কারাদণ্ড প্রাপ্ত বিএনপির যুগ্ম মহাসচিব ও সংসদ সদস্য হারুন অর রশিদকে হাইকোর্টের দেওয়া ৬ মাসের জামিন আদেশ বহাল রেখেছেন আপিল বিভাগ। এর ফলে তার জামিনে মুক্তি পেতে আর কোনও বাধা নেই বলে জানিয়েছেন আইনজীবীরা।

বুধবার (৩০ অক্টোবর) প্রধান বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেনের নেতৃত্বাধীন আপিল বেঞ্চ এ আদেশ দেন বলে এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে বাংলা ট্রিবিউন।

আদালতে দুদকের আবেদনের পক্ষে ছিলেন আইনজীবী খুরশীদ আলম খান। আর হারুন অর রশিদের পক্ষে ছিলেন অ্যাডভোকেট জয়নুল আবেদীন।

এরআগে ২৮ অক্টোবর এ মামলায় হারুন অর রশিদকে ৬ মাসের জামিন দেন বিচারপতি শওকত হোসেনের হাইকোর্ট বেঞ্চ। একইসঙ্গে নিম্ন আদালতের দেওয়া অর্থদণ্ড স্থগিত করে রায়ের বিরুদ্ধে আপিল শুনানির আদেশ দেন হাইকোর্ট। পরে হাইকোর্টের আদেশ স্থগিত চেয়ে ২৯ অক্টোবর আপিল করে দুদক। তবে সুপ্রিম কোর্টের চেম্বার জজ আদালত সে আপিলের ওপর আপিল বিভাগের পূর্ণাঙ্গ বেঞ্চে বুধবার (৩০ অক্টোবর) শুনানির দিন নির্ধারণ করে দিয়েছিলেন।

প্রসঙ্গত, ২১ অক্টোবর হারুন অর রশিদকে পাঁচ বছরের দণ্ড দিয়ে কারাগারে পাঠান ঢাকার বিশেষ জজ আদালত-৪ এর বিচারক শেখ নাজমুল আলম। পাশাপাশি তাকে ৫০ লাখ টাকা জরিমানা অনাদায়ে আরও ছয় মাসের কারাদণ্ডাদেশ দেওয়া হয়। ওই রায়ের বিরুদ্ধে খালাস চেয়ে আজ সোমবার (২৮ অক্টোবর) তিনি হাইকোর্ট আপিল করেন এবং এর সঙ্গে জামিন আবেদন করেন।

শুল্কমুক্ত গাড়ি এনে তা বিক্রি করে আত্মসাতের ঘটনায় দুদকের দায়ের করা মামলায় তাকে এ সাজা দেওয়া হয়। এ মামলায় আরও দু’জনকে সাজা দেওয়া হয়েছে। তারা হলেন, ব্যবসায়ী এনায়েতুর রহমান ও গাড়ি ব্যবসায়ী ইশতিয়াক সাদেক।