Saturday, June 15, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

ফখরুল: ব্যবসায়ী সিন্ডিকেটে সরকারের এমপি-মন্ত্রীরা জড়িত

তিনি বলেন, এই সরকার বাংলাদেশের সমস্ত সম্ভাবনাকে ধ্বংস করে দিয়েছে। বাংলাদেশের মানুষকে একটা ভয়াবহ অবস্থার দিকে ঠেলে দিচ্ছে

আপডেট : ১৭ মার্চ ২০২২, ১২:৫৫ পিএম

বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, “নিত্যপণ্যের বাজারে আগুন, সরকার নিয়ন্ত্রণ করতেই পারে না। এই সরকারের নিয়ন্ত্রণের ক্ষমতা নেই। কারণ সরকারই এই দ্রব্যমূল্যের দাম বাড়িয়েছে। ব্যবসায়ী সিন্ডিকেটের সঙ্গে এই সরকারের মন্ত্রী, এমপি নয়ত দলের লোক জড়িত।

বুধবার (১৬ মার্চ) দুপুরে দলের সাবেক মহাসচিব প্রয়াত খোন্দকার দেলোয়ার হোসেনের জন্মস্থান মানিকগঞ্জে এক স্মরণসভায় যোগ দিয়ে এসব কথা বলেন মির্জা ফখরুল।

তিনি বলেন,“এই সরকার বাংলাদেশের সমস্ত সম্ভবনাকে ধ্বংস করে দিয়েছে। বাংলাদেশের মানুষকে একটা ভয়াবহ অবস্থার দিকে ঠেলে দিচ্ছে। সরকারের এই ব্যর্থতার ফল ভোগ করছে সাধারণ মানুষ।”

এ সময় মানিকগঞ্জ জেলা বিএনপি সাধারণ সম্পাদক এস এ জিন্নাহ কবির, জেলা বিএনপির সহ-সভাপতি ড. খোন্দকার আকবর হোসেন বাবলু,খোন্দকার আব্দুল হামিদ ডাবলু, সাংগঠনিক সম্পাদক অ্যাডভোকেট আ ফ ম নূরতাজ আলম বাহার, গোলাম আবেদীন কায়সার, রফিক উদ্দিন ভূঁইয়া হাবুসহ অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনের নেতৃবৃন্দরা উপস্থিত ছিলেন।

বিএনপির মহাসচিব আরও বলেন, “সরকার দলীয় নেতাকর্মীদের দুর্নীতি সর্ব মহলে ক্যন্সারের মতো ছড়িয়ে পরেছে। এত বড় দুর্নীতি আমরা আগে কখনও দেখিনি। অর্থাৎ পরিকল্পিতভাবে এই সরকার এই দেশকে দুর্নীতির স্বর্গরাজ্যে পরিণত করেছে। সাধারণ মানুষের কথা তারা চিন্তাও করে না। তাদের সে কথাবর্তা শুনলে মনে হবে না এই দেশের জনগণের প্রতি তাদের ভালোবাসা আছে।”

নির্দলীয় নিরপেক্ষ সরকার ছাড়া আগামীতে কোনো নির্বাচন হতে দেওয়া হবে না উল্লেখ করে মির্জা ফখরুল বলেন, “ভোটারবিহীন সরকারকে অনেক সুযোগ দেওয়া হয়েছে। আগামী নির্বাচনে আর কোনো সুযোগ দেওয়া হবে না। জনগণের বাঁধ ভেঙে গেছে, জনগণই প্রতিরোধ গড়ে তুলবে। জনগণের সরকার হতে হলে নির্বাচনকালীন একটা নিরপেক্ষ সরকার লাগবে। আওয়ামী লীগের অধীনে এটা হবে না।”

About

Popular Links