Monday, May 27, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

সিরাজুল আলম খান মারা গেছেন

একাধিক শারীরিক জটিলতা নিয়ে ঢামেক হাসপাতালে লাইফ সাপোর্টে ছিলেন স্বাধীন বাংলা বিপ্লবী পরিষদের অন্যতম প্রতিষ্ঠাতা

আপডেট : ০৯ জুন ২০২৩, ০৩:৫২ পিএম

রাজনীতির “রহস্য পুরুষ” সিরাজুল আলম খান (দাদা ভাই) মারা গেছেন।

শুক্রবার (৯ জুন) দুপুর আড়াইটার দিকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন তিনি। হাসপাতালের পরিচালক বিগ্রেডিয়ার জেনারেল নাজমুল হক বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

৮২ বছর বয়সী সিরাজুল আলম খান উচ্চ রক্তচাপ, শ্বাসকষ্ট, ফুসফুসে সংক্রমণসহ নানা শারীরিক জটিলতায় ভুগছিলেন।

গত ৭ মে থেকে শমরিতা হাসপাতালে চিকিৎসা চলছিল তার। ২০ মে তাকে ঢাকা মেডিকেলে স্থানান্তর করা হয়। শারীরিক অবস্থারি অবনতি হলে ১ জুন তাকে কেবিন থেকে নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে (আইসিইউ) স্থানান্তর করা হয়। ২০২১ সালেও অসুস্থ হয়ে কিছুদিন তিনি ঢামেক হাসপাতালে ভর্তি হয়েছিলেন। 

দীর্ঘদিন যুক্তরাষ্ট্রে কাটিয়ে দেশে ফেরার পর ঢাকার কলাবাগানে ভাইদের সঙ্গে থাকতেন তিনি।

বাংলাদেশের স্বাধীনতার পক্ষে আন্দোলন-সংগ্রাম পরিচালনার লক্ষ্যে তৎকালীন ছাত্রলীগ নেতা সিরাজুল আলম খান, আব্দুর রাজ্জাক ও কাজী আরেফ আহমেদের নেতৃত্বে ষাটের দশকের প্রথমার্ধে স্বাধীন বাংলা বিপ্লবী পরিষদ বা স্বাধীনতার “নিউক্লিয়াস” গঠিত হয়। পরবর্তীতে ছাত্র-তরুণদের আন্দোলন সংগঠনে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখেন তারা। বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ঘনিষ্ঠ সাহচর্যে ছিলেন নিউক্লিয়াসের ছাত্রনেতারা।

বাংলাদেশ স্বাধীন হওয়ার পরপরই শেখ ফজলুল হক মনির সঙ্গে বিরোধের জের ধরে বাংলাদেশ ছাত্রলীগ ভেঙে দুই ভাগ হয়। এরপর ১৯৭২ সালে সিরাজুল আলম খানের উদ্যোগে রাজনৈতিক দল জাসদ প্রতিষ্ঠা হয়।

About

Popular Links